জমে উঠেছে সবচেয়ে বড় প্রযুক্তি উৎসব

কেউ এসেছে শিক্ষকদের সঙ্গে। আবার কেউ এসেছে মা-বাবার হাত ধরে। স্কুল-কলেজের ইউনিফর্ম পরা শিক্ষার্থীদের অনেক বড় সারিবদ্ধ লাইন। শিশু থেকে কিশোর-কিশোরী, সঙ্গে মধ্যবয়স্ক শিক্ষক-শিক্ষিকা। বয়সের ভেদাভেদ ভুলে এ যেন অন্যরকম এক মিলনমেলা। স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীদের পদচারণায় প্রাণের সঞ্চার পেয়েছে দক্ষিণ এশিয়ার সর্ববৃহৎ তথ্য ও প্রযুক্তি উৎসব ডিজিটাল ওয়ার্ল্ড ২০১৬।
মেলার দ্বিতীয় দিন বৃহস্পতিবার সকাল থেকেই রাজধানীর বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা আসতে শুরু করে প্রযুক্তির উদ্ভাবনী জ্ঞান আহরণে। দশম শ্রেণীর পরীক্ষার্থী আফরোজা আক্তার বলেন, তথ্যপ্রযুক্তি এখন আমাদের নিত্যপ্রয়োজনীয়। বর্তমানে আমাদের পাঠ্যসূচিতে তথ্যপ্রযুক্তির বিষয় পড়ানো হয়। তাই এ মেলায় এসে তথ্যপ্রযুক্তির নতুন বিষয় সম্পর্কে জানার চেষ্টা করছি।
ঢাকা সিটি কলেজের একাদশ শ্রেণীর শিক্ষার্থী রেশমা আক্তার বলেন, তথ্যপ্রযুক্তি সম্পর্কে যত ভালো জানব, ততই শিক্ষা ক্ষেত্রে ভালো করতে পারব। বন্ধুরা মিলে এসেছি প্রযুক্তির এ মেলা দেখতে। বন্ধুরা মিলে বিভিন্ন স্টলে ঘুরে দেখছি।
গুলশানের একাডেমিয়া ইংলিশ মিডিয়াম স্কুল, মানারাত ঢাকা ইন্টারন্যাশনাল কলেজ, পুলিশ স্মৃতি স্কুল অ্যান্ড কলেজ, গ্লোরি স্কুল অ্যান্ড কলেজ, উত্তরার ওয়াইড ভিশন স্কুল, মোহাম্মদপুর মডেল স্কুল অ্যান্ড কলেজ ও তেজগাঁও সরকারি হাইস্কুলসহ রাজধানীর প্রায় ২০টির বেশি স্কুলের শিক্ষার্থীরা আসে এ মেলায়।
মেলার দ্বিতীয় দিনে ভেঞ্চার ক্যাপিটাল, ই-কমার্স, ডিজিটাল প্লাটফর্ম ও প্রযুক্তি ব্যবসাবিষয়ক মোট আটটি সেশন ও সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়। সকালে ‘ভেঞ্চার ক্যাপিটাল ফর স্টার্ট-আপ’ শীর্ষক এ সেমিনার অনুষ্ঠিত হয় গুলনকশা হলে। সেমিনারে বক্তা হিসেবে ছিলেন অর্থপ্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান ও এফবিসিসিআই পরিচালক ও বেসিসের সাবেক সভাপতি শামীম আহসান। সকাল সাড়ে ১০টায় এক নম্বর সেমিনার হল ‘লিভিং নো ওয়ান বিহাইন্ড’ সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধানমন্ত্রীর আন্তর্জাতিকবিষয়ক উপদেষ্টা ড. গওহর রিজভী ও সমাজকল্যাণ প্রতিমন্ত্রী এম নুরুজ্জামান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন। একই সময় ‘ইমপ্রভিং বিজনেস ইফিসিয়েন্সি দ্য আইসিটি’ শীর্ষক সেমিনারে বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ, বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বিপু।
দুপুরে ‘ডিজিটাল বাংলাদেশ-পার্সপেকটিভ স্মার্ট ঢাকা’ সেমিনারে বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায়মন্ত্রী খন্দকার মোশাররফ হোসেন, ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন মেয়র সাঈদ খোকন, ঢাকা উত্তরের মেয়র আনিসুল হক। একই সময় ‘বিল্ডিং এ স্মার্ট স্টার্টআপ ইকো সিস্টেম-কানেক্টিং স্টার্টআপ’ শীর্ষক এ প্যানেল ডিসকাশনে বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। বিকালে ‘আইসিটি ক্যারিয়ার ক্যাম্প’, ‘ইনক্লুসিভ ফাইন্যান্স দো টেকনোলজিস’, ‘ইন্ডাস্ট্রি-একাডেমি ডায়ালগ ফর ডিজিটাল গ্রোথ’ শীর্ষক এ সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়।
এবারের ডিজিটাল ওয়ার্ল্ডে সরকারের ৪০টি মন্ত্রণালয় ও দফতরের পাশাপাশি বেসরকারি তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানও অংশ নিচ্ছে। নতুন উদ্যোগ বা স্টার্টআপের জন্য ৩৮টি স্টলও থাকছে। সবমিলিয়ে স্টলের সংখ্যা রয়েছে ২৬৩টি। ‘ননস্টপ বাংলাদেশ’ সেøাগানে বুধবার থেকে শুরু হওয়া এ উৎসবের মূল আয়োজনে রয়েছে তথ্যপ্রযুক্তি বিভাগ আয়োজক হিসেবে আছে বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব সফটওয়্যার অ্যান্ড ইনফরমেশন সার্ভিসেস (বেসিস), বিসিসি ও এটুআই। এবারের আয়োজনে আইএফআইসি ব্যাংক প্লাটিনাম পার্টনার হিসেবে রয়েছে। বাংলাদেশ কম্পিউটার সমিতি (বিসিএস), বাংলাদেশ উইমেন ইন ইনফরমেশন টেকনোলজি, সিটিও ফোরাম বাংলাদেশ, ই-কমার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ, বাংলাদেশ আইসিটি জার্নালিস্ট ফোরাম (বিআইজেএফ) এবং বোল্ড রয়েছে সহযোগী পার্টনার হিসেবে।
বিস্তারিত তথ্য জানা যাবে (www.digitalworld.org.bd) ওয়েবসাইটে।

 


স্যামসাং ফোল্ডএবল স্মার্টফোন আনবে মার্চে
স্যামসাং তাদের ফোল্ডএবল ফোন বাজারে আনবে ২০১৯ সালের মার্চে। সোমবার
বিস্তারিত
এশিয়ায় ‘ব্রেকিং নিউজ’ চালু করার
ফেইসবুক এবার উদ্যোগ নিয়েছে ইউরোপের পাশাপাশি এশিয়ায় ‘ব্রেকিং নিউজ’ চালুর।
বিস্তারিত
দারাজের বর্ধিত ক্যাম্পেইন ১৫ নভেম্বর
দারাজ বাংলাদেশ প্রথমবারের মতো উদযাপন করল বিশ্বের সবচেয়ে বড় সেল
বিস্তারিত
নকিয়া ৫.১ প্লাস এবং ৩.১
নকিয়া ফোনের সূচনাগার এইচএমডি গ্লোবাল বাংলাদেশে মঙ্গলবার দুটি নতুন মোবাইল
বিস্তারিত
এলজির গেমিং মনিটর বাজারে
গ্লোবাল ব্র্যান্ড প্রাইভেট লিমিটেড দেশের বাজারে নিয়ে এলো এলজি মনিটর
বিস্তারিত
চ্যাম্পিয়ন শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির স্বাগতিকতায় এশিয়া অঞ্চলের (ঢাকা সাইট) বিশ্বের অন্যতম
বিস্তারিত