ম্যাসাচুসেটস অঙ্গরাজ্যের প্রভাবশালী সিনেটর এলিজাবেথ ওয়ারেন। এ অঙ্গরাজ্য থেকে নির্বাচিত প্রথম নারী সিনেটর তিনি। আসন্ন নির্বাচনে হিলারির রানিংমেট হওয়া নিয়ে অনেক জল্পনা-কল্পনা হলেও শেষ পর্যন্ত তা হয়ে ওঠেনি। ২২ মে বোস্টনের সাফোক বিশ্ববিদ্যালয় থেকে তাকে ‘পাবলি

অনাকাক্সিক্ষত ঘটনার জন্য প্রস্তুত হও

আমি জানি, সমাবর্তনে বক্তারা আশার কথা বলে, উদ্দীপকের কথা বলে, সুন্দর ও  সাবলীল জীবনের পরামর্শ দেয়। কিন্তু আমি সৎ, তাই আমি বলব, জীবন হবে ভুলে ভরা, বিভিন্ন অনাকাক্সিক্ষত ঘটনা আর  বিভিন্ন বাঁক আর বদলে ভরা। এর জন্য তোমাদের প্রস্তুত হতে হবে। অনাকাক্সিক্ষত ঘটনার জন্য প্রস্তুত হও। এটা ভেবো না যে, সব পরিকল্পনা তোমার চেনা পথেই ফলবান হয়ে ফিরে আসবে। জীবনের বিভিন্ন শাখা পথে তোমার জন্য সুযোগ অপেক্ষা করছে। জীবনের পরিকল্পনার ওপর বেশি ‘ফোকাস’ কর না, তাহলে তোমার অনিচ্ছা সত্ত্বেও যেসব অনাকাক্সিক্ষত ব্যাপার চলে আসবে সেটাকে গ্রহণ করার শক্তি হারিয়ে ফেলবে।
আমার সমাবর্তন দিনে আমিও অনেক কিছুই কল্পনা করতে পারি যা আমার জীবনে পরবর্তী সময়ে ঘটেছে। আমি কখনও কল্পনাও করিনি যে, আমি আইনের শিক্ষক হব। আমি এও কল্পনা করিনি, আমি হব যুক্তরাষ্ট্রের একজন সিনেটর। আমি ভাবিনি আমি স্বর্ণকেশী হব, তাও হয়েছি এবং আমি মনে করি, আমার জীবন এখন স্বর্ণময়। মনে রেখ, এটাই জীবন। সুতরাং আমার পরামর্শ খুব সাধাসিধেÑ ‘রেডি থাক’। যদি তুমি মনে কর, তোমার জীবনের সবকিছু পরিকল্পনা করা আছে তাহলে তুমি ভুলের মধ্যে আছ। বিশ্বাস কর, তোমার জীবনের সবচেয়ে রোমাঞ্চকর অংশটিকে এ মুহূর্তে তোমার চিন্তার রাডারে ধরতে পারনি।
আমার জীবনের পরিকল্পনা ছিল, আমি শিক্ষক হবÑ তাই হয়েছিলাম। কিন্তু যখন আমি সন্তানসম্ভবা তখন বাধ্য হয়ে আমাকে শিক্ষকতার চাকরিটা ছেড়ে দিতে হলো। সন্তান লালন-পালনের সময়েই আমার মাথায় এলো, আমি আইনজীবী হব। নতুন করে আইনের স্কুলে ভর্তি হলাম, আইনজীবীও হলাম। তারপর একসময় রাজনীতি, তারপর সিনেটর হওয়া...। যখন আমার একটি প্লান জানালা দিয়ে পালিয়ে গেল, তখন আমি আরেকটিতে ডাকতে পেরেছি।
লোকে তোমাকে তোমার জীবনের পরিকল্পনা শোনাতে চাইবে, শুনতে চাইবে। কিন্তু তুমি তোমার পথে সংকল্পবদ্ধ হয়ে পড়ে থাক। আশপাশের পরামর্শদাতারা সঠিক হতে পারে আবার ভুল হতে পারে। আমি সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম আমি যুদ্ধ করব। আমি কী করছি সেটা হলো ব্যাপার, কাজটি করতে গিয়ে আমি কোথায় পৌঁছাই সেটা কোনো ব্যাপার নয়। যে চাকরিই কর না কেন কিংবা যে কোম্পানির গাড়িই চালাও না কেন, প্রশ্ন হলো তুমি সেখানে নিজেকে শতভাগ নিয়োজিত করেছ কিনা?
নিজেকে জানার আলাদা একটা শক্তি আছে। ‘তুমি কে’, এটা জানা তোমাকে জীবন যুদ্ধের সময় সাহায্য করবে। এটা তোমাকে সাহায্য করবে যখন লোকে তোমাকে বলবে, ওই কাজটা তোমার পক্ষে অসম্ভব কিংবা ওইটা তুমি পারবে না। তোমার জীবনে যখন কোনো অনাকাক্সিক্ষত মুহূর্ত আসে এবং সেই সময় যদি তোমার নিজেকে জানা থাকে এবং তুমি তোমার বিশ্বাসের জন্য যুদ্ধ করতে প্রস্তুত থাক, তাহলে আমি প্রতিশ্রুতি দিতে পারি, তুমি এমন একটি জীবনযাপন করবে যেটা হবে সবদিক থেকে তাৎপর্যপূর্ণ। জীবনকে অন্যের মতামতে যাপন কর না। আরেকজনের চিন্তা দিয়ে কখনোই তোমার জীবন চলতে পারে না।
যুদ্ধ কর, যা তুমি বিশ্বাস কর তার জন্য। যুদ্ধ কর, যা তুমি চাও তার জন্য। যুদ্ধ কর, তাদের বিরুদ্ধে যারা বলে, ‘তুমি এটা পারবে না’। আমি যখন আইন পড়া শুরু করলাম, তখনও মেয়েরা আইন পড়া শুরু করেনি। আমি ছিলাম একা। রাজ্যশুদ্ধ লোক চিৎকার করে ‘না-না’ বলতে লাগল। কিন্তু আমি আমার সিদ্ধান্তে অটল ছিলাম।
তোমাদের সবাইকে ধন্যবাদ।
তৈরি হও, অনাকাক্সিক্ষত রোমাঞ্চকর ঘটনার জন্য!


আন্তর্জাতিক প্রশিক্ষণ পেলেন ৯০ প্রাণী
পোলট্র্রির বিজ্ঞানসম্মত স্বাস্থ্য ব্যবস্থাপনা, সঠিকভাবে রোগবালাই নির্ণয়, চিকিৎসা এবং রোগ
বিস্তারিত
সবার উপরে বাবা-মা
যে-কোনো মানুষের গায়ে হাত তোলাই অপরাধ। আর সন্তান হয়ে বাবা-মায়ের
বিস্তারিত
স্মৃতির মানসপটে যুক্তরাজ্য সফর
বিদেশে যাওয়ার অভিজ্ঞতা হয়তো অনেকেরই হয়ে থাকে। তবে কলেজের প্রতিনিধি,
বিস্তারিত
ব্যবসার ধারণা : গড়তে চাইলে
নিজের পায়ে দাঁড়াতে হলে আপনাকে উদ্যোগী হতে হবে। আর উদ্যোক্তা
বিস্তারিত
৭৫ শতাংশ বৃত্তিতে আইটি ও
বিভিন্ন কারণে যারা আইটিতে দক্ষতা উন্নয়নের সুযোগ থেকে বঞ্চিত তাদের
বিস্তারিত
লক্ষ্য যখন কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়
ক্রমবর্ধমান জনসংখ্যার বিপরীতে ক্রমাগত উর্বরা জমির পরিমাণ কমছে। জনসংখ্যার এ
বিস্তারিত