স্বাধীনতার ঘুড়ি

আমি মায়ের ডানপিটে এক ছেলে
সারাটা দিন কাটাই হেসে খেলে।

অনেক দিনের স্বপ্ন-আঁকা
লাল-সবুজের আঁচল ঢাকা
আজ আকাশে উড়িয়ে দেব
নতুন রঙের ঘুড়ি,
আজকে মাগো দাও না ছুটি
রঙের পাখায় উড়ি।

সেই ঘুড়িটার রঙিন লেজে
মিহিন বাতাস উঠবে বেজে
বুঝবে মাগো বাবার দেয়া
বাজছে হাতের চুড়ি,
মাগো, আমায় দাও না ছুটি
আজ ওড়াব ঘুড়ি।

মাগো আমি আমগাছেতে
মারব না আর ঢিল,
ছোট্ট সোনা সাফিয়াকে
আর দেব না কিল।

আজকে মাগো, দাও না ছুটি
রৌদ্র-মাঠে পুড়ি
আবার আমি দিই উড়িয়ে
স্বাধীনতার ঘুড়ি।

সেই ঘুড়িটা উড়ে উড়ে
যাবে অনেক দূর,
আনবে তুলে একাত্তরের
বাপ হারানো সুর।


নৌকাবাইচ
আমরা শুনতে পেলাম ঘাসির জন্য একটি রুপার মেডেল আছে। বাইছির
বিস্তারিত
শীতের আগমনী
শিশির ভেজা দূর্বা জানায়  শীতের আগমনী, শীত সকালে গাইছে গান
বিস্তারিত
পুঁচকে হাতি
সকালবেলা ঘুম থেকে উঠেই ইজতিদের বাড়ির দিকে রওনা হলো নিমকি।
বিস্তারিত
প্রকৃতি ও ইচ্ছা
আকাশেতে উড়ে বেড়ায় সাদা মেঘের ভেলা, নীল আকাশে যায় যে
বিস্তারিত
জাদুর পাখি
ভাবতে ভাবতে কখন জানি শুভ ঘুমিয়ে পড়ে। রাতের ভাত খাওয়ার
বিস্তারিত
মায়ের ভাষায়
ক্লাসের খাতা, বইয়ের ছবি মায়ের ভাষায় আঁকি, বুকের ভিতর শহীদ
বিস্তারিত