‘পারফেক্ট লাইফ’ বলে কিছু হয় না -শাহরুখ খান

শাহরুখ খান। বলিউডে অন্যতম এ অভিনেতা গেল বছরের ১১ ডিসেম্বর ভারতের বেঙ্গালুরুতে অবস্থিত ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউট অব ম্যানেজমেন্ট (আইআইএমবি) আয়োজিত আইআইএমবি লিডারশিপ সামিটে বক্তব্য দেন সৃজনশীল নেতৃত্ব নিয়ে। তার এ বক্তব্যের ইংরেজি থেকে সংক্ষেপিত অনুবাদ করেছেন মারুফ ইসলাম।

শুভ সন্ধ্যা! আজকের অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেয়ার আমন্ত্রণ পেয়ে আমি সত্যিই অভিভূত। যখন ভাবছি এইসব জ্ঞানী-গুণীর সামনে আমাকে কথা বলতে হবে, তখনই মনটা বরফের মতো জমে যাচ্ছে। কী বলব আমি? যা হোক, আমার নিজের কথা দিয়েই শুরু করি। আমার বয়স এখন ৫০। বয়সটা এমন, যে বয়সে অধিকাংশ মানুষ অবসরে যাওয়ার পরিকল্পনা করে থাকেন। আবেগি কোনো পরিকল্পনা করেন না। কিন্তু আমার দিকে তাকাও, দেখ, এখনও আমি আমার ছোট্ট ছেলেমেয়েদের মতো কিচিরমিচির করছি! ফলে তারা আমাকে তাদের বয়সী ভাবে। তাদের সঙ্গে এভাবেই মিশি আমি। এর নাম লিডারশিপ।
লিডারশিপের ওপর অনেক বই লেখা হয়েছে। কীভাবে নেতৃত্বের দক্ষতা বাড়ানো যায়, নেতৃত্বের নিয়মকানুন কী ইত্যাদি বিষয় আছে সেসব বইয়ে। বলার অপেক্ষা রাখে না, এটা একটা জটিল অবস্থা। কিন্তু আমি বিশ্বের অনেক সফল ব্যবসায়ীর সঙ্গে কথা বলেছি, কাছ থেকে দেখেছি, তাদের কখনও জটিল মনে হয়নি। তাদের আইডিয়া পরিষ্কার এবং তারা সোজাসাপটা কথা বলেন।
নিজের চারপাশের জগৎকে নিজের মতো করে বদলে ফেলার সহজাত ক্ষমতা থাকে একজন লিডারের মধ্যে। তারা কখনও প্রশ্ন করতে ভয় পান না, ভয় পান না স্বপ্ন দেখতে। স্রোতের বিপরীতে গিয়ে কোনো পদক্ষেপ নিতেও পিছপা হন না। 
হ্যাঁ এটা ঠিক, শুধু স্বপ্ন দেখলেই হবে না। পুরনো, স্থবির রীতিনীতিকে ভেঙে নিজের এগিয়ে চলার পথ মসৃণ করতে হবে। ব্যর্থতায় পিছিয়ে এলে চলবে না। বরং ক্রিজে টিকে থেকে মোকাবিলা করতে হবে। আমি বিশ্বের অনেক সফল করপোরেটের সংস্পর্শে এসেছি। নিজ নিজ ক্ষেত্রে অত্যন্ত প্রতিষ্ঠিত অথচ নিজের সম্পর্কে যখন তাদের বলতে দেয়া হয়, কথার মধ্যে সেই উষ্ণতা কোথায় যেন হারিয়ে যায়। আমার দৃঢ়বিশ্বাস, যে ব্যবসায়ীরা শুধু অঙ্ক বোঝেন, আবেগের ধারপাশ মাড়ান না, টার্গেটে পৌঁছানোর লক্ষ্য তাদের যেন প্রাণহীন যন্ত্রে পরিণত করেছে। আমার মতে, সৃজনশীলতা ‘ম্যানেজেরিয়াল’ নয়, বরং ‘ইম্যাজিনেরিয়াল’ কনসেপ্ট। কিন্তু নেতৃত্ব দেয়ার অর্থ প্রেরণা জোগানো। স্ট্যাটিসটিক্স আর সংখ্যা দিয়ে শুধু ব্যাংকার আর স্টক ব্রোকারদেরই অনুপ্রাণিত করা যায়। কারণ প্রেরণার সঙ্গে আবেগের যোগ রয়েছে। কোনো ব্যক্তি বা পণ্যের প্রতি মানুষের আস্থা অর্জন করতে হলে চিন্তাশক্তির জোর থাকতে হবে। ভাবনা আবদ্ধ থাকলে সৃজনশীলতা বাধা পায়। 
আমি কোনো দিন নিজের লক্ষ্য স্থির করি না। বক্স অফিসে কয়েকশ’ কোটি টাকা আয়ের উদ্দেশ্যেও ঝাঁপাই না। কারণ এ ধরনের লক্ষ্য স্থির করার অর্থ নিজেকে বিভ্রান্ত করা। জীবনের সারসত্য হলো কঠোর পরিশ্রম। পরিশ্রম ছাড়াই স্বপ্নের উড়ান গতি পাবে, এটা ভাবার অর্থ মূর্খের স্বর্গে বাস করা। জীবনের প্রতিটি মুহূর্তের গুরুত্ব রয়েছে। নিজের স্বপ্ন পূরণের জন্য না ঝাঁপালে জীবন সাদামাটাই থেকে যাবে। তবে এর জন্য বিপর্যয়ের ঝাঁপটাও পোহাতে হয় লিডারদের। পরিজনকে হারাতেও হয়। আমাকেও হয়েছে। কিন্তু এমনটা হলে কী করবেন? হাত-পা ছুড়ে কাঁদবেন? আমি মাঝে মাঝে অবশ্য সেটাই করি। সুসজ্জিত বাথরুমের বাথ ট্যাবে স্টিম বাথ নিতে নিতে হাপুস নয়নে কেঁদে ভাসাই। অল্প সল্প কান্নাকাটি খারাপ নয়। কিন্তু পরিস্থিতিকে মেনে নিয়ে তার মোকাবিলায় কোমর বেঁধে নামাই একজন লিডারের বৈশিষ্ট্য। 
আমার মনে হয়, ‘পারফেক্ট লাইফ’ বলে কিছু হয় না। ‘পারফেক্ট লাইফ’ এর বাক্যাংশের কোনো অস্তিত্বই নেই। আসলে অভিজ্ঞতার এবড়োখেবড়ো অধ্যায়ই আমাদের জীবনকে সুন্দর করে তোলে। সমস্যাই আমাদের ভালোভাবে বাঁচতে শেখায়। তাই তাদের আলিঙ্গন করতে দোষ কোথায়? 
জীবনের চড়াই-উতরাই আপনি তখনই উপভোগ করবেন, যখন দুই চোখ খোলা রেখে সব চ্যালেঞ্জকে আহ্বান জানাবেন। সৃজনশীলতায় ভর করে প্রকৃত সাফল্য পেতে গেলে ‘পজিটিভ ভাইবস’ খুব জরুরি। আর তা তখনই সম্ভব, যখন অন্যদের জন্য ভালো কিছু করার জিগির থাকবে আপনার মধ্যে। সেটাই যে কোনো সৃজনশীল নেতার মূল ভিত্তি।
    তথ্যসূত্র : টাইমস অব ইন্ডিয়া


আন্তর্জাতিক প্রশিক্ষণ পেলেন ৯০ প্রাণী
পোলট্র্রির বিজ্ঞানসম্মত স্বাস্থ্য ব্যবস্থাপনা, সঠিকভাবে রোগবালাই নির্ণয়, চিকিৎসা এবং রোগ
বিস্তারিত
সবার উপরে বাবা-মা
যে-কোনো মানুষের গায়ে হাত তোলাই অপরাধ। আর সন্তান হয়ে বাবা-মায়ের
বিস্তারিত
স্মৃতির মানসপটে যুক্তরাজ্য সফর
বিদেশে যাওয়ার অভিজ্ঞতা হয়তো অনেকেরই হয়ে থাকে। তবে কলেজের প্রতিনিধি,
বিস্তারিত
ব্যবসার ধারণা : গড়তে চাইলে
নিজের পায়ে দাঁড়াতে হলে আপনাকে উদ্যোগী হতে হবে। আর উদ্যোক্তা
বিস্তারিত
৭৫ শতাংশ বৃত্তিতে আইটি ও
বিভিন্ন কারণে যারা আইটিতে দক্ষতা উন্নয়নের সুযোগ থেকে বঞ্চিত তাদের
বিস্তারিত
লক্ষ্য যখন কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়
ক্রমবর্ধমান জনসংখ্যার বিপরীতে ক্রমাগত উর্বরা জমির পরিমাণ কমছে। জনসংখ্যার এ
বিস্তারিত