হেলিকপ্টারে চড়ে পিরোজপুরে এমপি

দেড় বছর পর ভাইয়ের সঙ্গে বিরোধ নিস্পত্তি

ছোট ভাইয়ের সঙ্গে প্রায় দেড় বছরের ‘বিরোধ’ নিস্পত্তি শেষে আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে হেলিকপ্টারে চড়ে পিরোজপুর স্টেডিয়ামে নামলেন সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি একেএমএ আউয়াল। এসময় দলীয় নেতাকর্মীরা বৃষ্টি উপেক্ষা করে বিভিন্ন শ্লোগান এবং ফুলেল শুভেচ্ছায় তাকে সিক্ত করেন।

পরে সেখান থেকে এমপি আউয়াল বৃষ্টি উপেক্ষা নেতাকর্মীদের সঙ্গে নিয়ে পায়ে হেঁটে স্টেডিয়াম মাঠ থেকে সরাসরি পৌছেন স্থানীয় গোপালকৃষ্ণ টাউনক্লাব মাঠে। এ সময় সদর রোডের দু’ধারে অসংখ্য উৎসুখ জনতা হাত নেড়ে তাকে উষ্ণ অভ্যর্থনা জানায়।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আশীর্বাদ নিয়ে পিরোজপুরে উপস্থিত হয়েছেন জানিয়ে আউয়াল নেতাকর্মীদের উদ্দেশে বলেন, ‘আপনাদের ভয় পাওয়ার কিছু নেই, কারণ সুবিধাবাদীরা কখনো কোন কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে পারেনা, তারা কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে ভয় পায় এবং দলের আদর্শ তাদের পক্ষে বাস্তবায়ন হয়না। আমি ’

প্রশাসনের উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘প্রশাসনে যারা আছেন, প্রজাতন্ত্রের কর্মচারী যারা আছেন তারা কোন ব্যক্তি স্বার্থে ব্যবহৃত হবেন না। অনেক ত্যাগের ফলে পিরোজপুরকে মাদক মুক্ত করেছিলাম, সেই পিরোজপুর এখন মাদকে সয়লাব হয়ে গেছে।’

এসময় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য দেন এমপির ছোট ভাই উপজেলা চেয়ারম্যান মজিবুর রহমান খালেক, জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আক্তারুজ্জামান ফুলু, স্বরূপকাঠি পৌরসভার মেয়র গোলাম কবির ও আওয়ামী লীগ নেতা আবু সালেহ বাবুল। 

দলীয় সূত্র জানায়, ২০১৫ সালের ১১ ডিসেম্বর জেলা আওয়ামী লীগের কাউন্সিল অনুষ্ঠিত হওয়ার কয়েক মাসের মধ্যেই ছোট ভাইদের সঙ্গে অভ্যন্তরীন দ্বন্দ্বে জড়িয়ে পড়েন একেএমএ আউয়াল। পরে ওই দ্বন্দ্ব শেষ পর্যন্ত রাজনৈতিক কোন্দলে রূপ নেয়। এরই জের হিসেবে মেঝ ভাই, পৌর মেয়র ও আওয়ামী লীগ নেতা মো. হাবিবুর রহমান মালেক, সেজ ভাই, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. মজিবুর রহমান মালেক এবং ছোট ভাই জেলা চেম্বারের সভাপতি মো. মশিউর রহমান মহারাজের সঙ্গে দূরত্ব সৃষ্টি হতে থাকে তার। কিছুটা আকষ্মিকভাবেই বুধবার রাত থেকে রাজনৈতিক মহলে গুঞ্জন ওঠে ছোট ভাই মজিবুর রহমান খালেক তার বড় ভাই এমপি আউয়ালের সঙ্গে সকল ভেদাভেদ ভুলে গিয়ে মিলে গেছেন।

শহরে বিষয়টি ‘টক অব দ্যা টাউনে’ পরিণত হলেও অনেকের কাছেই ব্যাপারটি খটকা লাগছিল। কিন্তু বৃহস্পতিবার দুপরের পর থেকে বিষয়টির সত্যতা নিশ্চিত হওয়া গেল। কিন্তু আউয়ালের অন্য দুই ছোট ভাই হাবিবুর রহমান মালেক ও মশিউর রহমান মহারাজ বড় ভাইয়ের সঙ্গে রয়েছেন কি-না তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি। বিকেলে হেলিকপ্টারযোগে স্টেডিয়ামে নামলে এমপি আউয়ালকে প্রথমেই তার সেজ ভাই মজিবুর রহমান খালেক ফুলের তোড়া হাতে দিয়ে অভিনন্দন জানান। 


ভালুকায় ধর্ষণচেষ্টা মামলায় ইউপি মেম্বার
ময়মনসিংহের ভালুকায় এক গৃহবধূকে ধর্ষণচেষ্টা মামলায় এক ইউপি মেম্বার পুলিশের
বিস্তারিত
বাউফলে বাইক দুর্ঘটনায় ছাত্রলীগ নেতা
পটুয়াখালীর বাউফলে বাইক দুর্ঘটনায় মাহিন (১৮) নামের এক ছাত্রলীগ নেতা
বিস্তারিত
রাজশাহীতে শেখ রাসেলের জন্মদিন পালিত
রাজশাহীতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কনিষ্ঠপুত্র শেখ রাসেলের
বিস্তারিত
রাজশাহীতে গ্রেপ্তার ভারতীয় জেলে কারাগারে
রাজশাহীর চারঘাট উপজেলার পদ্মা নদীতে ইলিশ শিকারে এসে আটক হওয়া
বিস্তারিত
সদরঘাটে লঞ্চের ক্যান্টিনে বাবুর্চিকে কুপিয়ে
ঢাকার কেরানীগঞ্জে বুড়িগঙ্গা নদীর সদরঘাটে এমভি কির্তনখোলা-২ লঞ্জের ক্যান্টিনের বাবুর্চিকে
বিস্তারিত
চেয়ারম্যান হয়েই টাকার মালার সংবর্ধনা
ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়ে টাকার মালার সংবর্ধনা নিয়েছেন
বিস্তারিত