জিহ্বায় শব্দের স্বাদ!

জিহ্বায় শব্দের স্বাদ পান ইংল্যান্ডের ম্যানচেস্টার শহরের বাসিন্দা জেমস ওয়ানারটন। এটি অবশ্য তার একটি রোগ। এর নাম সিনেস্থেশিয়া। দি ইনডিপেন্ডেন্টকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেছেন, কুকুরের ডাক শুনলে আমি কাস্টার্ডের স্বাদ পাই। ‘লাইক’ শব্দ শুনলে দইয়ের স্বাদ পাই। এরকম লম্বা ফিরিস্তি তুলে ধরেছেন তিনি।

ওয়ানারটন প্রথম শব্দের স্বাদ পেয়েছিলেন স্কুলে। ঈশ্বরের প্রার্থনা উচ্চারণ করার সময় তিনি বেকনের স্বাদ পান। কোনো একটি নির্দিষ্ট শব্দ শুনলে জিহ্বায় কোনো একটি নির্দিষ্ট স্বাদ আসে এ অভিজ্ঞতার কথা অনেক দিন লুকিয়েই রেখেছিলেন তিনি। ২০ বছর বয়সে জানতে পারেন, চিকিৎসাবিজ্ঞানে এটি নতুন নয়। এখন তো এ নিয়ে গবেষণাও হচ্ছে। তবে তিনি যে শুধু খাবারের স্বাদ পান, তা কিন্তু নয়। ?মার্ক শব্দটি তাকে পেনসিলের শিসের স্বাদ এনে দেয়। ‘ডেভিড’ শব্দটি শুনলে তিনি কাপড়ের স্বাদ পান। স্কুলে ফরাসি ভাষা শেখার সময় তিনি ডিমের স্বাদ পেয়েছিলেন। আর জার্মান ভাষা শেখার স্বাদ ছিল মার্মালেডের মতো। এ কারণে ছেলেবেলায় বন্ধুত্ব করার সময় বেছে বেছে দোস্তি করতেন। যাদের নাম তাকে বিশ্রী স্বাদ এনে দিত, তাদের সঙ্গে দোস্তি নয়! এমনকি প্রেমিকা বাছাই করতেও নামের স্বাদকে গুরুত্ব দিতেন তিনি। এ বিষয়ে ওয়ানারটন বলেন, শব্দের স্বাদ পছন্দ না হলে আমার বিরক্ত বা বিষাদের অনুভূতি হয়। এটি আমি চাইলেও এড়াতে পারি না। কিন্তু এ অদ্ভুত জটিলতা মেনে নিয়েই তিনি এখন একজন সুখী মানুষ।


যে কারণে জরায়ু কেটে ফেলছেন
ঋতুচক্রের সময়ে মালিকের নানা গঞ্জনা শুনতে হয়, বেতন কাটা যায়।
বিস্তারিত
জানেন কালো বিড়াল অশুভ কেন?
সুদূর প্রাচীন কাল থেকেই মানুষের মধ্যে কিছু প্রচলিত বিশ্বাস রয়েছে।
বিস্তারিত
ভবিষ্যতে খাবার সংকটে পোকামাকড়ই সমাধান!
টিভি পর্দার জনপ্রিয় চরিত্র বেয়ার গ্রিলসকে নিশ্চয়ই চেনা আছে। প্রতিকূল
বিস্তারিত
নারীদের স্তন কেটে বিক্রির ব্যবসা,
নারীদের স্তন কেটে নিয়ে তা বিক্রি করে দিতেন এক লোক।
বিস্তারিত
অতিরিক্ত সুন্দরী হওয়ায় ট্রাফিকের জরিমানা!
গাড়িতে বসা অতিরিক্ত সুন্দরী নারী, আর এ কারণেই জরিমানা করে
বিস্তারিত
যে গ্রাম বছরের ১১ মাস
ভারতের পশ্চিমের প্রদেশ গোয়া একটি গ্রাম বছরের ১১ মাস থাকে
বিস্তারিত