মালি

মনে করতাম উৎপলের পরে বসন্ত নিয়ে গান গাওয়ার অধিকার আর কারও নেই। এ মনে হওয়ার ফাঁকগুলোতেও বসন্ত আসে। আর আসে। একেকটি গাছ তখন অসজ্জিত ফুলের দোকান। একেকটি গাছ তখন নিষ্ঠুর মালি;Ñ ঝরে পড়া ফুলও বেচতে চায়।

তবুও প্রার্থনা করি ভিখিরিরা, সমস্ত হলুদ। আর বিচ্ছিন্ন বিবাহটির কথা খুব মনে পড়ে। মনে পড়ে গায়ে হলুদ না হওয়ার অতৃপ্তিসমূহ;Ñ বোনেদের।


দীপা
পহেলা ফাল্গুন। বইমেলায় শাড়ি পরিহিতা সুশ্রী একজন লেখিকা ৩০১ নম্বর
বিস্তারিত
মেঘ শুধু মেঘ নয়
মেঘ শুধু মেঘ নয়; খুঁজেছো কি মেঘে তুমি কিছু  শাদা
বিস্তারিত
আলো অন্ধকারে যাই
ভ্যান থেকে যখন নামল সে, বহু মানুষ দাঁড়িয়ে আছে। সন্ধ্যা
বিস্তারিত
চেতনা বিকাতে পারি
  যিনি চেতনাবাজ হয়ে বেঁচে আছেন এক মেরদ-ী শিক্ষকের কথা বলি যিনি
বিস্তারিত
টুপটুপ রক্ত ঝরছে
কপালে লাল টিপ সেঁটে দৌড়ে ছুটছে লাল ষাঁড় শিং ছুঁয়ে
বিস্তারিত
মায়ের শরীরের একাংশ আমি
আমার অস্তিত্বের অঙ্কুরোদগম হয়েছিল এক মায়াবী নারীর গূঢ় কর্ষিত জঠরে
বিস্তারিত