সব দলকে নির্বাচনে আনা সরকারের দায়িত্ব: ফখরুল

সবার সমান সুযোগ নিশ্চিত করতে বিরোধী দলগুলোকে তাদের স্বাভাবিক কার্যক্রম পরিচালনা করতে দিতে হবে। সবাইকে নির্বাচনে আনা সরকারের দায়িত্ব।

রাজধানীর নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সোমবার দুপুরে সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

ফখরুল বলেন, এটি নির্বাচনী বছর। সেজন্য সুষ্ঠু, অবাধ ও অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন করতে পরিবেশ তৈরি করতে হবে। আর এজন্য বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলোকে তাদের স্বাভাবিক গণতান্ত্রিক রাজনৈতিক কার্যক্রম পরিচালনার অধিকার দিতে হবে। তা না হলে নির্বাচন অংশগ্রহণমূলক হবে কীভাবে? সবাইকে নির্বাচন আনা তো সরকারের দায়িত্ব।

তিনি বলেন, তারা সব ধরনের গণতান্ত্রিক অধিকার বন্ধ করে দিচ্ছে। মত প্রকাশের যে স্বাধীনতা সেই পথ রুদ্ধ করে দিচ্ছে। ক্রমান্বয়ে জনগণের সাংবিধানিক অধিকার কেড়ে নিচ্ছে। এর মাধ্যমে তারা আবারো একটি একদলীয় নির্বাচনের দিকে যাচ্ছে।

বিএনপির এই নেতা বলেন, দেশ কী গোয়েন্দারা চালাচ্ছে যে, একটি বৃহৎ রাজনৈতিক দলকে তাদের রিপোর্টের ওপর ভিত্তি করে সমাবেশের জন্য অনুমতি দেওয়া হলো না?

তিনি বলেন, জনসভার করা আমাদের সাংবিধানিক অধিকার। বিএনপি নেত্রীর মুক্তি দাবিতে আমরা নিয়মতান্ত্রিকভাবে শান্তিপূর্ণ কর্মসূচি পালন করছি। আমরা চাচ্ছি আমাদের নুন্যতম যে গণতান্ত্রিক অধিকার সেটি পালন করতে দেওয়া হোক।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন, নজরুল ইসলাম খান, ড. আবদুল মঈন খান, আইনজীবী আহমদ আজম খান, আতাউর রহমান ঢালী, রুহুল কবির রিজভী, আবদুস সালাম আজাদ প্রমুখ।


সংবিধান অনুযায়ী ডিসেম্বরে নির্বাচন হবে:
আইনমন্ত্রী অ্যাডভোকেট আনিসুল হক বলেছেন, নির্বাচনের সময় থাকবে নির্বাচনকালীন সরকার।
বিস্তারিত
আওয়ামী লীগের মনোনয়ন দৌড়ে তরুণরা
একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশীদের
বিস্তারিত
‘ঐক্য হচ্ছে ষড়যন্ত্রের, গণতন্ত্রের ঐক্য
সমাজকল্যাণ মন্ত্রী ও ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি রাশেদ খান মেনন গণফোরাম
বিস্তারিত
সত্যকে অস্বীকার করে বস্তুনিষ্ঠ সাংবাদিকতা
চট্টগ্রামের বিএনপি নেতাদের উদ্দেশ্য করে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক এবং
বিস্তারিত
মন্ত্রীরা মনে করেন দেশটা তাদের
বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, হবুচন্দ্র রাজার দেশের
বিস্তারিত
‘ধানের শীষ এখন বিষ’
বিএনপির নির্বাচনী প্রতীক ‘ধানের শীষ’কে ‘বিষ’ হিসেবে আখ্যা দিয়েছেন আওয়ামী
বিস্তারিত