পানিফলে বাড়তি আয়

কম খরচে অধিক লাভ পাওয়ায় জামালপুরের মুক্ত জলাশয়গুলোয় বাণিজ্যিকভাবে চাষ হচ্ছে পানিফল। খেতে সুস্বাদু আর ফরমালিনমুক্ত হওয়ায় স্থানীয়দের কাছে বেশ জনপ্রিয় এ পানিফল। জামালপুরের নদীভাঙন কবলিত এলাকায় এ ফলটি চাষ করে কৃষক বাড়তি আয়ের পাশাপাশি ধীরে ধীরে স্বাবলম্বী হয়ে উঠছেন। এখানকার পানিফল যাচ্ছে রাজধানী ঢাকাসহ বিভিন্ন জেলায়।

স্থানীয় কৃষক জানান, খাল, বিল, ডোবা ও নালাতে পানিফল চাষ করা হয়। জুন মাসের প্রথম সপ্তাহে চাষ শুরু হয় চাষ। বিঘাপ্রতি মাত্র ১০ থেকে ১২টি পানিফল গাছ ফেলে রাখলেই চলে। কচুরিপানার মতো দেখতে এ ফলগাছে মাত্র ১২০ দিনেই ফলন পাওয়া যায়। পানিফল চাষে প্রতি একরে কৃষক ৩ থেকে সাড়ে ৩ হাজার টাকা খরচ হয় আর লাভ হয় ৩০ হাজার টাকা। বর্তমানে প্রতি মণ পানিফল ৮০০ থেকে ১ হাজার টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে। কৃষি বিভাগের তথ্যনুযায়ী জামালপুর জেলার সরিষাবাড়ী, দেওয়ানগঞ্জ ও ইসলামপুর উপজেলার প্রায় ২৫০ হেক্টর জমিতে পানিফল চাষ করা হয়। এ ফল চাষে প্রায় ৫০০ চাষি প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে জড়িয়ে আছে। জেলায় উৎপাদিত এসব পানিফল স্থানীয় চাহিদা মিটিয়ে বিক্রি করা হয় রাজধানী ঢাকাসহ অন্যান্য জেলায়। সাধারণত জুন মাসে মুক্ত জলাশয়ে কচুরিপানার মতো পানিফলের গাছ ছড়িয়ে দেয়া হয়। অক্টোবরের শেষ থেকে ডিসেম্বর পর্যন্ত এসব গাছে ফল আসে। ১০ বিঘা জলাশয়ে পানিফল আবাদ করতে খরচ হয় ৫০ থেকে ৬০ হাজার টাকা আর তা থেকে ৭ থেকে ৮ লাখ টাকা আয় করা যায়। পানিফল ফরমালিনমুক্ত হওয়ায় ছোট-বড় সবার কাছেই খুব প্রিয়। সরকারের সহযোগিতা আর কৃষি বিভাগের যথাযথ পরামর্শ পেলে এখানকার কৃষক আরও বেশি পরিমাণ জলাশয়ে পানিফল চাষ করে আর্থিকভাবে লাভবান হতে পারবে।

জামালপুর কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের উপপরিচালক কৃষিবিদ    ড. মোঃ রফিকুল ইসলাম বলেছেন, কৃষি বিভাগের পক্ষ থেকে সব ধরনের সহযোগিতার পাশাপাশি চাষিদের উন্নত জাত সম্পর্কে ধারণা দিয়ে তৃণমূল পর্যায়ে কৃষি কর্মকর্তারা পানিফল নিয়ে কাজ করে যাচ্ছেন। নিয়মিত ফসলের সঙ্গে পানিফল চাষে এ জেলার কৃষক বাড়তি আয় করছেন।


আধুনিক পদ্ধতিতে টমেটো চাষে মুন্সীগঞ্জের
মুন্সীগঞ্জের বিভিন্ন উপজেলায় টমেটো চাষে কৃষকদের আগ্রহ ক্রমেই বাড়ছে। গত
বিস্তারিত
সিলেটের সদর ও ফেঞ্চুগঞ্জ শতভাগ
সরকার ঘোষিত শতভাগ বিদ্যুতায়ন কর্মসূচির আওতায় সিলেট জেলার অধিকাংশ এলাকা-ই
বিস্তারিত
মালয়েশিয়ায় শ্রমিকদের রি-হায়ারিং ‘মেয়াদ বাড়ছে’
মালয়েশিয়ায় অবৈধভাবে বসবাসকারী বাংলাদেশি শ্রমিকদের রি-হায়ারিংয়ের সময়সীমা শেষ হবে আগামী
বিস্তারিত
শেরপুরে আমন চাষে লাভবান কৃষক
বগুড়ার শেরপুর উপজেলায় এবার আমনের বাম্পার ফলন হওয়ায় লাভবান কৃষক।
বিস্তারিত
বারোমাসি আমে লাভ বহুগুণ
ফুলতলা উপজেলার পূর্ব মশিয়ালী গ্রামে বাণিজ্যিক ভিত্তিতে গড়ে উঠেছে বারোমাসি
বিস্তারিত
সিরাজদিখানে আমন ধানের বাম্পার ফলন: কৃষকের
অনুকূল আবহাওয়ার কারণে মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখান উপজেলায় এবার ধানের বাম্পার ফলন
বিস্তারিত