চাঁদ দেখা


 

বটগাছের ওই পাতার ফাঁকে চাঁদটি দিল উঁকি
দেখতে এলো দৌড়ে যত পাড়ার খোকাখুকি।
ছলিম চাচা, মন্টু মিয়া, ছাকেন আলীর দাদা
ছুটতে গিয়ে পিছলে পড়ে মাখলো গায়ে কাদা।
কলমি বুড়ি, টেপির নানি, গোপালশেখের খালু
তাদের সাথে জুটলো এসে মোল্লাবাড়ির কালু।

চাঁদ দেখেছি, চাঁদ দেখেছি... চেঁচায় সবাই মিলে
হট্টগোলে চমকে ওঠে গফুর গাজীর পিলে।
দৌড়ে আসে গফুর মিয়াÑ যায় যে আগে ভুঁড়ি
কা- দেখে দুষ্টুগুলো হেসেই হুড়োহুড়ি।

সন্ধ্যা যখন যায় গড়িয়ে চাঁদটি লুকায় মেঘে
চাঁদের দেখা না পেয়ে যায় গফুর মিয়া রেগে।
রাগের চোটে ভেংচি কেটে বাসায় ফিরে যায়
খুশির তোড়ে খোকাখুকু ঈদের কোরাস গায়। 


বন্ধু
আবুল বলল, ‘আমাগো ভুল বুইঝ না ভাই। আমরা আসলে...’, ‘তোরা
বিস্তারিত
হেমন্ত দিন
হেমন্ত দিন হরেক রঙিন হরেক রঙের খেলা বনে বনে ফুল-পাখিদের
বিস্তারিত
এলিয়েন এসেছিল
হামীম বসা থেকে দাঁড়িয়ে পড়ল। বললÑ কে তুমি? -হ্যাঁ আমি
বিস্তারিত
হেমন্ত এসেছে
মাঠে মাঠে সোনা ধানে প্রাণটা ফিরে পেল সেদ্ধ চালের গন্ধ
বিস্তারিত
বাংলা মায়ের সবুজ প্রাণ
ইস্টি কুটুম মিষ্টি পাখির দুষ্ট ছানা আকাশ নীলে মেলছে খুশির নরম
বিস্তারিত
হেমন্তের নেমন্ত
ধানের ছড়ায় ঝুলছে সোনা আসলো ঋতু হেমন্ত শিশির কণা চিঠি
বিস্তারিত