শিরোপা জয়ের স্বপ্ন দেখতেই পারি: সুজন

এশিয়া কাপে বাংলাদেশের তেমন কোনো সুখস্মৃতি নেই বললেই চলে। যেসব স্মৃতি আছে, তার সবটাই স্বপ্নভঙ্গের। দুইবার শিরোপার খুব কাছে গিয়েও হাতছাড়া করেছে বাংলাদেশ। ২০১২ সালে পাকিস্তানের কাছে মাত্র ২ রান ও ২০১৬ সালের এশিয়া কাপে ভারতের কাছে ৮ উইকেটে হেরে শিরোপাবঞ্চিত হন মাশরাফি-সাকিবরা।

২০১২ ও ২০১৬ সালের এশিয়া কাপের দুটি আসরই অনুষ্ঠিত হয়েছিল বাংলাদেশের মাটিতে। দুইবার দেশের মাটিতে শিরোপা হাতছাড়া করা বাংলাদেশই এবার শিরোপা জয়ের মিশনে নামার প্রস্তুতি নিচ্ছে। বিগত দিনের পারফরম্যান্সের আলোকে আসন্ন এশিয়া কাপ শিরোপার স্বপ্ন টাইগাররা দেখতেই পারে বলে মনে করেন দলের ম্যানেজার খালেদ মাহমুদ সুজন। এবারের এশিয়া কাপ মিশনে তাকে আশাবাদী করে তুলছে টুর্নামেন্টের ফরম্যাট (ওয়ানডে), সদ্য সমাপ্ত ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরের তরতাজা সুখস্মৃতি ও টাইগারদের প্রস্তুতি।

জাতীয় দলের সাবেক এ অধিনায়ক মনে করছেন, দুই আসরে ফাইনাল খেলা বাংলাদেশ এবার এশিয়া কাপে শিরোপার স্বপ্ন দেখতেই পারে। গতকাল মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে সংবাদ মাধ্যমকে সুজন বলেন, ‘বাংলাদেশ যে ম্যাচেই খেলবে, সেই ম্যাচেই চাপ। এমন নয় যে বাংলাদেশ আগে ফাইনালে খেলেনি। যেহেতু আমরা ফাইনাল খেলেছি, শিরোপা জয়ের স্বপ্ন দেখতেই পারি। আফগানিস্তান বলেন বা শ্রীলঙ্কা বলেন- সবার সঙ্গে চাপ থাকবে আমাদের। চাপ কাটিয়ে কীভাবে ভালো করা যায়, এটাই দেখার বিষয়।’

ভারতে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকলেও পাকিস্তানের আপত্তির কারণে এশিয়া কাপের এবারের আসরটি অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে সংযুক্ত আরব আমিরাতে। সুজন জানান, সেখানকার কন্ডিশনে লড়াই করাটা সহজ না হলেও ভালো করার লক্ষ্য নিয়ে অংশ নেবে বাংলাদেশ দল। টুর্নামেন্টে লক্ষ্যের ওপর গুরুত্বারোপ করে এশিয়া কাপে টাইগার দলের ম্যানেজার বলেন, ‘লক্ষ্য নিয়ে যাওয়া তো অবশ্যই ভালো। তাহলে সবাই বেশি মনোযোগী থাকব। ভারত-পাকিস্তানও আছে আসরে। এছাড়া কঠিন কন্ডিশনে খেলা; লড়াই সহজ হবে না। তারপরও লক্ষ্য নিয়ে এগোতে হবে।’

সুজন যোগ করেন, ‘এ ফরম্যাটে আমরা সবসময় ভালো ক্রিকেট খেলি। অনুশীলনও ভালোভাবে হয়েছে। সব মিলিয়ে তৃপ্তি আছে। যদি কারও ইনজুরি না হয়, সব ঠিক থাকে তাহলে এবার ভালো সুযোগ আছে। ওয়েস্ট ইন্ডিজ থেকে আসার পর দলের আত্মবিশ্বাস অনেক বেশি ভালো। আমার মনে হয়, সবমিলিয়ে আমরা ভালো ক্রিকেট খেলব।’ ক্রিকেটার ও কোচিং স্টাফরা সবাই ঠিকভাবে কাজ করলে ফলাফল বাংলাদেশের পক্ষে আসবে জানিয়ে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) এ পরিচালক আরও বলেন, ‘আমাদের পুরো ম্যানেজমেন্ট আছে। ব্যাটিং কোচ, ফিল্ডিং কোচ মিলিয়ে আট-নয় জন স্টাফ আছে। সবাই ঠিকমতো কাজ করলে ফল আমাদের পক্ষেই আসবে।’ ১৫ সেপ্টেম্বর থেকে সংযুক্ত আরব আমিরাতে এবারের এশিয়া কাপ? মাঠে গড়াবে। আর উদ্বোধনী ম্যাচেই শ্রীলঙ্কার মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ। ‘বি’ গ্রুপে টাইগারদের অপর প্রতিপক্ষ আফগানিস্তান।


বাংলাদেশকে ২৫৬ রানের চ্যালেঞ্জ দিল
এশিয়া কাপ শুরু হওয়ার আগে সাকিব আল হাসানের ফিটনেস নিয়ে
বিস্তারিত
হাফ সেঞ্চুরিয়ান হাসমতউল্লাহকে ফেরালেন রুবেল
অভিষেক ম্যাচে আবু হায়দার রনির পর বল হাতে জ্বলে উঠেছেন সাকিব
বিস্তারিত
সাকিবের তৃতীয় আঘাত, স্বস্তিতে বাংলাদেশ
অভিষিক্ত আবু হায়দার রনির পর বল হাতে জ্বলে উঠেছেন সাকিব
বিস্তারিত
অভিষেকেই আফগান শিবিরে জোড়া আঘাত
এশিয়া কাপের গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচে আজ মুখোমুখি হয়েছে আফগানিস্তান
বিস্তারিত
ফিল্ডিংয়ে বাংলাদেশ, শান্ত-রনির অভিষেক
এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিলের (এসিসি) হাস্যকর নিয়মে বাংলাদেশ ও আফগানিস্তানের মধ্যেকার
বিস্তারিত
সুপার ফোরের লড়াই শুরু শুক্রবার
এশিয়া কাপের ১৪তম আসরে শেষ চার নিশ্চিত করেছে- ভারত, পাকিস্তান,
বিস্তারিত