বাংলাদেশ হয়ে কলকাতা যাবে চীনের বুলেট ট্রেন

চীনের কুমিং প্রদেশ থেকে কলকাতায় বুলেট ট্রেন সার্ভিস চালুর পরিকল্পনা করছে চীন। আকাশপথে এই দুরত্বে যেতে সময় লাগে সোয় দুই ঘণ্টা। আর রেলপথে? বড়জোর ঘণ্টা পাঁচেক। বাংলাদেশ ও মিয়ানমার হয়ে এই বুলেট ট্রেন চলাচল করবে।

এ রেলপথ তৈরি করতে আগ্রহ দেখিয়েছে চীন সরকার। বুধবার (১২ সেপ্টেম্বর) কলকাতায় একটি অনুষ্ঠানে চীনের কনস্যুল জেনারেল মা ঝানোউ জানান, বিশেষজ্ঞদের কাছ থেকেই এই প্রস্তাবটি প্রথমে আসে। ‘অত্যন্ত আকর্ষণীয়’ এই প্রস্তাবটি বাস্তবায়িত করতে আগ্রহী চীন সরকার।

তিনি বলেন, এই রুটে বুলেট ট্রেন চালু করা গেলে কলকাতাসহ পূর্ব ভারত ও উত্তর-পূর্ব ভারতের সঙ্গে সহজেই জোড়া যাবে বাংলাদেশ, মায়ানমার ও চীনকে।

চার দেশের মধ্যে পণ্য ও মানুষের যাতায়াত সুবিধাজনক হবে। ট্রেনটি কলকাতা থেকে রওনা দিয়ে ঢাকা হয়ে যাবে মিয়ানমার। ঘণ্টায় গড়ে ৪০০ কিলোমিটার বেগে মিয়ানমারের সীমান্ত পেরিয়ে চীনের কুনমিংয়ে গিয়ে থামবে বুলেট ট্রেন।

স্টেশনগুলোতে দাঁড়াতে যত কম সময় নেবে, তত তাড়াতাড়ি ট্রেন পৌঁছবে কলকাতা থেকে চীন।

চীন সরকার চায়, বিশেষজ্ঞরা আরও বেশি করে এই বিষয়টি নিয়ে পর্যালোচনা করুন। এর পর বিষয়টি নিয়ে ভারত, বাংলাদেশ ও মায়ানমার সরকারের সঙ্গে আলোচনা শুরু হবে। বুলেট ট্রেনের জন্য আলাদা লাইন তৈরি করতে হবে। সেক্ষেত্রে কিছুটা সমস্যা হতে পারে।

চীনের কনস্যুল জেনারেলের দাবি, সবুজ সংকেত পেলে মাত্র দশ বছরেই বুলেট ট্রেন চালু করা হয়ে যাবে।


সওয়াল জওয়াব
প্রশ্ন : আমি পাশের গ্রামের এক চাষিকে ১ লাখ টাকা
বিস্তারিত
ধারের টাকার জন্য, রাস্তায় ফেলে
ধারের টাকা সময়মত পরিশোধ করতে না পারায় রাস্তায় ফেলে এক
বিস্তারিত
প্রকাশ্যে তরুণীকে অমানবিক শাস্তি
মাথার ওপর কাঠফাটা রোদ। এমন রোদের মধ্যে যেখানে একা একাই
বিস্তারিত
পৃথিবীর ইতিহাসে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা কুয়েতে
ভয়াবহ দাবদাহে উত্তপ্ত মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলো। এর মধ্যে পৃথিবীর ইতিহাসে সর্বোচ্চ
বিস্তারিত
হাসপাতালের বদলে ওঝার কাছে সাপে
কাউকে সাপে কাটলে সঙ্গে সঙ্গে হাসপাতালে নিয়ে যেতে হয়। সেখানেই
বিস্তারিত
সমুদ্রে ডুবিয়ে দেয়া হচ্ছে আস্ত
সমুদ্রের নিচে বিশ্বের সব বড় থিম পার্ক তৈরি করছে মধ্যপ্রচ্যের
বিস্তারিত