কাদেরকে সরিয়ে সংসদ উপনেতা রওশন

সংসদের বিরোধী দলের উপনেতার পদ থেকেও সরিয়ে দেয়া হয়েছে জিএম কাদেরকে। শনিবার (২৩ মার্চ) জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান সাক্ষরিত এক চিঠিতে এ সিদ্ধান্তের কথা জানানো হয়েছে।

জাপার সংসদীয় পার্টির চেয়ারম্যানের ক্ষমতা বলে তিনি এ সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বলে চিঠিতে উল্লেখ করা হয়। বিরোধী দলের উপনেতা হিসেবে রওশন এরশাদকে নিয়োগ দেয়ার কথাও বলা হয় এতে।

এর আগে শুক্রবার এক সাংগঠনিক নির্দেশে তাকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে বলে জানান জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের ডেপুটি প্রেস সচিব খন্দকার দেলোয়ার হোসেন জালালী।

জানা গেছে, জাতীয় পার্টির সংসদীয় কমিটির অনেক নেতাই এরশাদের সহোদর জিএম কাদেরের ওপর আস্থা রাখতে পারছেন না। বিশেষত রওশনপন্থি নেতাদের দাবি, সকল পদ থেকে তাকে সরিয়ে দেওয়া হোক। এদিকে অসমর্থিত সূত্রে জানা যায়, জাপার চেয়ারম্যান এরশাদেরও ইচ্ছে জিএম কাদের আপাতত সবকিছু থেকে দূরে থাকুক।

একইসঙ্গে সাংগঠনিক দায়িত্ব থেকেও অব্যাহতি দেয়া হয়েছে জিএম কাদেরকে।

সাংগঠনিক নির্দেশে বলা হয়েছে, জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হিসেবে আমি এই মর্মে আমার পার্টির সর্বস্তরের নেতা-কর্মী-সমর্থক-শুভানুধ্যায়ী এবং সংশ্লিষ্ট সব মহলের জ্ঞাতার্থে জানাতে চাই, আমি ইতোপূর্বে ঘোষণা দিয়েছিলাম যে, আমার অবর্তমানে পার্টির কো-চেয়ারম্যান গোলাম মোহাম্মদ কাদের পার্টি পরিচালনার সার্বিক দায়িত্ব পালন করবেন এবং আমি এটাও আশা প্রকাশ করেছিলাম যে, পার্টির পরবর্তী জাতীয় কাউন্সিল তাকে চেয়ারম্যান নির্বাচিত করবে। কিন্তু পার্টির বর্তমান সার্বিক অবস্থার বিবেচনায় আমার ইতোপূর্বেকার সেই ঘোষণা প্রত্যাহার করে নিলাম।

নির্দেশে আরও বলা হয়, যেহেতু কাদের পার্টি পরিচালনা করতে সম্পূর্ণ ব্যর্থ হয়েছেন, পার্টির সাংগঠনিক কার্যক্রম ঝিমিয়ে পড়েছে এবং তিনি পার্টির মধ্যে বিভেদ সৃষ্টি করেছেন। পার্টির সিনিয়র নেতারাও তার নেতৃত্বে সংগঠন করতে অপারগতা প্রকাশ করেছেন।

এমনতাবস্থায় সংগঠনের স্বার্থে পার্টির সাংগঠনিক দায়িত্ব এবং কো-চেয়াম্যানের পদ থেকে গোলাম মোহাম্মদ কাদেরকে অব্যাহতি দেয়া হলো। তবে তিনি পার্টির প্রেসিডিয়াম পদে বহাল থাকবেন। তিনি সংসদের বিরোধী দলীয় উপনেতার পদে থাকতে পারবেন কি-না তা জাতীয় পার্টির পার্লামেন্টারি পার্টি নির্ধারণ করবে।

পার্টির গঠনতন্ত্রের ২০/১/ক ধারা মোতাবেক এই সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে- যা অবিলম্বে কার্যকর হবে।


জাহিদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে:
দলীয় সিদ্ধান্ত অমান্য করে কেউ শপথ নিলে তা ‘সাংগঠনিক অপরাধ’
বিস্তারিত
সরকারি কর্মকর্তার নামে দুদকে মামলা
খেলার পাশাপাশি রাজনীতিতে নাম লিখিয়েছেন বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের ওয়ানডে
বিস্তারিত
জাহিদুরকে ‘গণদুশমন’ বললেন গয়েশ্বর
দলের সিদ্ধান্ত অমান্য করে ও দলীয় প্রধানকে কারাগারে রেখে যারা
বিস্তারিত
‘দলের সিদ্ধান্তের বাইরে গিয়ে শপথ
বহিষ্কারের কথা জেনেই দলের সিদ্ধান্তের বাইরে গিয়ে শপথ নিয়েছেন বলে
বিস্তারিত
শপথ নিলেন বিএনপির সংসদ সদস্য
সংসদ সদস্য হিসেবে শপথ নিয়েছেন ঠাকুরগাঁও-৩ আসন থেকে নির্বাচিত বিএনপির
বিস্তারিত
ক্ষমতা ও সম্পদ ছিনতাইয়ের আশঙ্কায়
নিজের স্বাক্ষর জালের আশঙ্কায় থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছেন জাতীয়
বিস্তারিত