আলোর পরশ

কোরআনের বাণী

আল্লাহ তায়ালা এরশাদ করেনÑ ‘নিঃসন্দেহে সর্বপ্রথম ঘর, যা মানুষের জন্য নির্ধারিত হয়েছে, সেটাই হচ্ছে এ ঘর, যা মক্কায় অবস্থিত এবং সারা জাহানের মানুষের জন্য হেদায়েত ও বরকতময়। এতে রয়েছে মাকামে ইবরাহিমের মতো প্রকৃষ্ট নিদর্শন। আর যে লোক এর ভেতরে প্রবেশ করেছে, সে নিরাপত্তা লাভ করেছে। আর এ ঘরের হজ করা হলো মানুষের ওপর আল্লাহর প্রাপ্য; যে লোকের সামর্থ্য রয়েছে এ পর্যন্ত পৌঁছার। আর যে লোক তা মানে না, আল্লাহ সারা বিশ্বের কোনো কিছুরই পরোয়া করেন না।’ (সূরা আলে ইমরান : ৯৬-৯৭)।


হাদিসের আলো

আবু জর (রা.) থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, আমি জিজ্ঞেস করলাম, ইয়া রাসুলাল্লাহ! পৃথিবীতে সর্বপ্রথম কোন মসজিদটি নির্মিত হয়েছিল? তিনি বললেনÑ ‘মসজিদুল হারাম (কাবাগৃহ)। আমি জিজ্ঞেস করলাম, অতঃপর কোনটি। তিনি বললেনÑ মসজিদুল আকসা (বায়তুল মুকাদ্দাস)। আমি জিজ্ঞেস করলাম, এই দুটির মধ্যে কালের ব্যবধান কতটুকু? তিনি বললেনÑ চল্লিশ বছর। তবে যেখানেই নামাজের ওয়াক্ত হবে, সেখানেই নামাজ আদায় করে নেবে। সেটাই মসজিদ।’ (মুসলিম : ১০৪২)। 


অর্থসম্পদের ভালো-মন্দ
সম্পদে বিপদ ও পরীক্ষাও আছে, কোরআন যা দ্ব্যর্থহীন ভাষায় বুঝিয়ে
বিস্তারিত
প্রকাশিত হলো বাংলাদেশি লেখকের আরবি উপন্যাস
প্রকাশিত হলো বাংলাদেশি লেখকের আরবি ভাষায় লেখা উপন্যাস ‘আল ইসার’।
বিস্তারিত
একাত্মবাদ ইসলামের প্রাণ
ইসলাম আগমনের আগে কাবায় অসংখ্য দৈত্য, জিন ও অন্যান্য দেবদেবীর
বিস্তারিত
আলোর পরশ
কোরআনের বাণী আল্লাহ তায়ালা বলেন, ‘অতঃপর সে ধর্মের ঘাঁটিতে প্রবেশ করেনি।
বিস্তারিত
মক্কা-মদিনায় যুক্ত হলেন কয়েকজন নতুন
গেল শনিবার (১২ অক্টোবর) পৃথিবীর সবচেয়ে মর্যাদাবান দুই মসজিদ তথা
বিস্তারিত
আল্লাহর অনুগ্রহ থেকে নিরাশ হয়ো
আজ সমাজে ভিক্ষুক থেকে শুরু করে কোটিপতি সর্বশ্রেণি হতাশার কালো
বিস্তারিত