আমাদের বিশ্ববিদ্যলয়গুলো বুরকিনা ফাসোর চেয়েও খারাপ!

সম্প্রতি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিষয় নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের অধ্যাপক ড. আসিফ নজরুল।

আজ বৃহস্পতিবার (৯ মে) তিনি তার নিজের ফেসবুক পেইজে এ স্ট্যাটাস দেন। আলোকিত বাংলাদেশ অনলাইনের পাঠকদের জন্য তার স্ট্যাটাসটি হুবহু তুলে ধরা হলো:-

বিস্মিত হন কেন?

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সেরা বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর তালিকায় কেন থাকে না এনিয়ে বিস্মিত হন কেন? এখানে দলীয় বিবেচনায় শিক্ষকের নিয়োগ, প্রমোশন, স্কলারশীপ হয়, অন্ধ দলবাজদের বড় বড় পদে নিয়োগ করা হয়, ছাত্রদের জোর করে রাত বিরাতে মিছিলে নেয়া হয়, যে কোন নির্মান ও মেরামত কাজ এমনকি কিছু নিয়োগে ঘুষ বা বখড়া দিতে হয় ছাত্রনেতাকে।

বেতন কম এধরনের কারন বা অজুহাতে এখানকার মেধাবী শিক্ষকরা সিংহভাগ সময় ব্যায় করে অন্য প্রতিষ্ঠানে, অমেধাবীরা নানারকম ধান্ধায়। এখানে গবেষনায় বরাদ্ধ খুব কম, সে টাকাও মাঝে মাঝে মেরে দেয়া হয়।

পৃথিবীর কোন দেশের বিশ্ববিদ্যলয়ে এসব ঘটে? এমন একটা ঘুনে ধরা প্রতিষ্ঠান কিভাবে সেরা তালিকায় আসবে? সব জেনেশুনে বিষ্মিত বা দু:খিত হন কেন? সব যখন মেনে নিয়েছি আমরা, তালিকার অবনমনও মেনে নিন সুখী চিত্তে।

আর নেপাল বা শ্রীলংকার বিশ্ববিদ্যালয়? এগুলো শুধু না, অচিরে দেখবেন আমাদের পাবলিক বিশ্ববিদ্যলয়গুলো বুরকিনা ফাসোর বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর চেয়েও খারাপ।


শিশু কথা বলে না! কান
আপনার সন্তান যদি ২/৩ বছর বয়সেও কথা বলতে না শেখে,
বিস্তারিত
১৫ আগস্ট: বঙ্গবন্ধুর ২০ উক্তি
আজ জাতীয় শোক দিবস। ১৯৭৫ সালের এই দিনে স্বাধীনতাবিরোধীদের চক্রান্তে
বিস্তারিত
বিশ্বের বিস্ময়ের আরেক নাম বঙ্গবন্ধু
বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশ অবিচ্ছেদ্য ইতিহাস। দেশ এবং দেশের মানুষের প্রতি
বিস্তারিত
এখনো রক্তের রঙ ভোরের আকাশে
‘ ... ১১ (১৯৬৭ সালের ফেব্রুয়ারি মাস) তারিখে রেণু এসেছে
বিস্তারিত
কাশ্মীরের পরিস্থিতি কোন দিকে
কাশ্মীরের পরিস্থিতি এখন কোন দিকে? কাশ্মীরের উত্তেজনার পরিস্থিতি কি আরেকটি
বিস্তারিত
খালের পানিতে বিষ প্রয়োগে মাছ
হায়রে ক্ষুদে প্রজন্ম তোমাদের জন্মদিয়ে ছেড়ে দিয়েছি ধরণীর আস্তাকুড়ে। একটিবারও
বিস্তারিত