ফরজ গোসল না করে সাহরি করলে...

মাসআলা

প্রশ্ন : একবার সাহরির আগে আমার স্বপ্নদোষ হয়। কিন্তু আমি গোসল করতে পারিনি। গোসল করতে আমার তীব্র লজ্জাবোধ হচ্ছিল। কারণ আমার মা-বাবা জেনে যাবে যে, আমার স্বপ্নদোষ হয়েছে। তাই গোসল না করে আমি সাহরি খেয়েছি। দুঃখজনক হলো, সেদিন আমি ফজরের নামাজও পড়িনি। তবে পরে গোসল করে আমি ফজরের নামাজ পড়েছি। আমি জানতে চাচ্ছি, আমার সে রোজাটা কি কবুল হয়েছে? কারণ আমার ধারণা হচ্ছে, আমি (স্বপ্নদোষজনিত) অপবিত্র অবস্থায় সাহরি খেয়ে ভুল করেছি। আমার রোজা কি কবুল হবে?

উত্তর : আলহামদুলিল্লাহ। কেউ যদি রাতের মধ্যে স্ত্রী সহবাস করে এবং কোনো কারণে অপবিত্র অবস্থায় সুবহে সাদিক হয়ে যায় তার রোজা শুদ্ধ হবে; অনুরূপভাবে রাতের বেলা অথবা দিনে ঘুমের মধ্যে কেউ যদি অপবিত্র হয়ে যায় তার রোজাও শুদ্ধ হবে। বিলম্বে ভোর হওয়ার পরে গোসল করতে দোষের কিছু নেই। কিন্তু কেউ যদি রমজানের দিনের বেলায় অর্থাৎ ফজরের পর থেকে সূর্য ডোবার আগ পর্যন্ত সময়ের মধ্যে স্ত্রী সহবাস করে তার রোজা নষ্ট হয়। [স্থায়ী কমিটির ফতোয়াসমগ্র (১০/৩২৭)]।
তবে দেরি করে সূর্যোদয়ের পর নামাজ আদায় করা আপনার জন্য হারাম। আপনার ওপর ফরজ ছিল যথাসময়ে নামাজ আদায় করা। আপনার তীব্র লজ্জা এক্ষেত্রে গ্রহণযোগ্য কোনো ওজর নয়; যার কারণে নামাজ আদায়ে এ বিলম্ব করা যেতে পারে। এখন আপনার কর্তব্য হচ্ছে, এ গোনাহ থেকে তওবা করা, ইস্তেগফার করা (ক্ষমা প্রার্থনা করা)। আল্লাহ আমাদের ও আপনাকে সব ভালো কাজ করার তৌফিক দিন।


শাইখ মুহাম্মদ সালেহ আল-মুনাজ্জিদ পরিচালিত ইসলাম কিউ অ্যান্ড 
এ থেকে ভাষান্তর করেছেন 
নুরুল্লাহ তারিফ


বায়তুল মোকাররমে ঈদের জামাতের সময়
পবিত্র ঈদুল ফিতর উপলক্ষে প্রতি বছরের মতো এবারও বায়তুল মোকাররম
বিস্তারিত
জুমাতুল বিদা আজ
আজ মাহে রমজানুল মোবারকের ২৮ তারিখ। আজ জুমাবার। এটাই এ
বিস্তারিত
চোখের পলকে পুলসিরাত পার করে
চলছে পবিত্র রমজান মাস। সিয়াম-সাধনার এ মাস জুড়েই রয়েছে রহমত,
বিস্তারিত
কাল পবিত্র লাইলাতুল কদর
হাজার মাসের চেয়ে শ্রেষ্ঠ রাত পবিত্র 'লাইলাতুল কদর'। মহিমান্বিত এ
বিস্তারিত
১০ বার কোরআন খতমের সওয়াব
একে একে শেষ হয়ে যাচ্ছে রহমত, মাগফিরাত আর নাজাতের দিনগুলো।
বিস্তারিত
মাগফিরাতের ১০দিন শুরু এবং আমাদের
আজ থেকেই শুরু হবে মাগফিরাতের ১০ দিন। দুনিয়ার সকল গোনাহগার
বিস্তারিত