শায়খ ড. মুহাম্মাদ সাইফুল্লাহ্ আল মাদানী সহযোগী অধ্যাপক এশিয়ান ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশ

বদনজর থেকে বাঁচব কীভাবে

প্রশ্ন : কিছু মানুষের বদনজরের কারণে অনেকে খুব ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে থাকে। যদি কেউ জানে যে অমুক ব্যক্তির কারণে আগে কারও ওপর বদনজর লেগেছিল, তাহলে সে ব্যক্তির বদনজর থেকে কীভাবে পরিত্রাণ পাওয়া যাবে? 
উত্তর : বদনজরের কারণে মানুষ বিভিন্নভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এমনকি মানুষ অসুস্থ হয়ে শেষ পর্যন্ত মৃত্যুমুখেও পতিত হতে পারে। এ বিষয়ে রাসুলুল্লাহ (সা.) এর হাদিস রয়েছে। জাবির বিন আবদিল্লাহ (রা.) থেকে বর্ণিত, রাসুলুল্লাহ (সা.) এরশাদ করেন, ‘মানুষের বদনজর বা কুদৃষ্টি একজন ব্যক্তিকে অসুস্থ করে কবর পর্যন্ত পৌঁছে দেয়, যেভাবে একটি উটকে অসুস্থ করে ডেগ পর্যন্ত পৌঁছে দেয় অর্থাৎ শেষ পর্যন্ত মানুষ জবাই করতে বাধ্য হয়।’ (সহিহুল জামে : ৪১৪৪)।
তাই বদনজর থেকে সতর্কতা অবলম্বন করতে আল্লাহর নবী (সা.) আমাদের নির্দেশনা দিয়েছেন। আয়েশা (রা.) থেকে বর্ণিত, ইবনে মাজাহর ৩৫০৮ নম্বর হাদিসের মধ্যে রাসুলুল্লাহ (সা.) বলেছেন, ‘তোমরা বদনজর থেকে আল্লাহ তায়ালার কাছে আশ্রয় প্রার্থনা কর, কেননা বদনজর সত্য।’ 
তাই রাসুলুল্লাহ (সা.) বদনজর থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য আমাদের অনেকগুলো দোয়া শিক্ষা দিয়েছেন। রাসুলুল্লাহ (সা.) আমাদের শিক্ষা দিয়েছেন এ দোয়াগুলো পাঠ করতেÑ (উচ্চারণ) ‘আউযু বিকালিমা তিল্লাহি তাম্মাতি মিন কুল্লি শাইতানিন ওয়া হাম্মাতিন ওয়া মিন কুল্লি আয়নিল লাম্মাতিন।’
‘আমি আল্লাহ তায়ালার আশ্রয় নিচ্ছি তার পরিপূর্ণ কালেমাগুলোর মাধ্যমে সব ধরনের শয়তানের অনিষ্ট থেকে এবং সব ধরনের কুদৃষ্টি থেকে।’ 
‘আউযু বিকালিমা তিল্লাহি তাম্মাতি মিন শাররি মা খালাক।’ 
‘আমি আল্লাহ রাব্বুল আলামিনের পরিপূর্ণ কালেমার মাধ্যমে তার আশ্রয় নিচ্ছি তার সব সৃষ্টির অনিষ্ট থেকে।’
তাই বদনজর থেকে বাঁচার জন্য আমরা এ দোয়াগুলো মুখস্থ করতে পারি। যদি কোনো ব্যক্তির ক্ষেত্রে এ আশঙ্কা হয় যে, তার কুদৃষ্টি বা বদনজর আপনার লাগতে পারে, তাহলে ওই ব্যক্তির কাছে যাওয়ার আগে আল্লাহ রাব্বুল আলামিনের কাছে এ দোয়াগুলোর মাধ্যমে আশ্রয় প্রার্থনা করে যেতে পারেন অথবা ওই ব্যক্তির মুখোমুখি হলেও আপনি এ দোয়াগুলোর মাধ্যমে আল্লাহ সুবহানাহু ওয়া তায়ালার আশ্রয় চাইতে পারেন। তাহলে আল্লাহ সুবহানাহু ওয়া তায়ালা আপনাকে বদনজর থেকে হেফাজত করবেন। 


নারী শিক্ষায় ইসলামের নির্দেশনা
পবিত্র কোরআনে বারবার মানুষকে পড়াশোনা করতে, জ্ঞানার্জনে ব্রতী হয়ে আল্লাহর
বিস্তারিত
কোরআন-হাদিসে একতার গুরুত্ব
কোরআন এবং হােিদস সংঘবদ্ধতার গুরুত্ব অপরিসীম। মুসলিম জাতি এক প্রাণ
বিস্তারিত
সালাম সম্প্রীতির বিকাশ ঘটায়
দেখা-সাক্ষাতে আমরা একে অপরকে শুভেচ্ছা-অভিবাদন জানাই। এটি আমাদের সহজাত একটি
বিস্তারিত
নীলসাগর
ভ্রমণ একটি আনন্দময় ইবাদত। জ্ঞান-বিজ্ঞান ও অভিজ্ঞতার উৎস। ভ্রমণের অন্যতম
বিস্তারিত
লোক-দেখানো দান সদকা নয়
ইসলামি পরিভাষায় দান করাকেই সদকা বলা হয়। সদকা শব্দটি এসেছে
বিস্তারিত
সদকার ব্যাপকতা
পৃথিবীতে চলমান অধিকাংশ পেশাই এমন, যেগুলো আল্লাহপাকের ইবাদতের মাধ্যম হতে
বিস্তারিত