পতিত পাতাদের শোক

প্রতিটি সন্ধ্যায়, আমার চোখে জেগে উঠে একেকটি স্টেশনÑ দূরপথে ছেড়ে যাবার আহ্বান হয়ে উঠে কোলাহল, আমি ভুলে যেতে থাকি ঠিকানা, গন্তব্যের পথে উড়ে যেতে থাকি, ভাসতে থাকি হাওয়ায়।

জটলা করে চেঁচামেচি করে গেয়ো কুকুরের দল, রাতের নির্জনতা ভঙ্গ হলো আমার, অনেক চেষ্টা হলো তারপরও জুড়ে আসেনি চোখ আর ঘুমের নামে, একটা পথ ডেকেছিল আমায়, সেখানে পাঠ ছিল তুমি সমগ্র।

এই যে মায়ের হাতে উঠে এলো প্রথম ভোর, আমি শুনছি তার স্তুতিগান অথচ স্তব্দ হয়ে আসছে গলা আমার কেমন বিবর্ণ, শবযাত্রার মতো সারা পথে লেগে আছে নিখোঁজ গল্প, আমি শুনছি পতিত পাতাদের শোক।

ঠিক যতোবার, জেগে উঠি-অনিদ্রায়
অশান্ত, শ্বাসভারি মৃত্যুর মতোন
ডেকেছি যেন তৃষ্ণায়, সমাপিত কোনো ইচ্ছে
আঙ্গুল ছুঁয়ে হেসে, এসো, নামাও অনন্ত এক ঘুম।


পরমানন্দ মূল : জন ডান
শয্যার পরে রাখলে বালিশ দেখায় যেমন মাটির ঢিবি তেমনি একটি
বিস্তারিত
কোনোদিন কথা হয়নি
  লাল কাঁকড়ার পদচিহ্ন খুঁজে খুঁজে হাঁটি পথ বালিচরে নগ্ন পা,
বিস্তারিত
গাঁয়ের বধূ
বড়ালের পাড়ে তরুণী বধূটি, তাদের সংসারে নুন আনতে পান্তা ফুরাতো।
বিস্তারিত
আমাদের গল্প অল্প
তোমাদের গল্প, আমাদের গল্প এক নয়, এক হতে পারে না 
বিস্তারিত
কবিতা ও ভাবনা
কবিতা একটি শিল্প, যা শুধু উপলব্ধি করার বিষয়। গভীর চিন্তাভাবনার
বিস্তারিত
হেমন্তিকা
সবুজ পাতার খামের ভেতর হলুদ গাঁদা চিঠি লেখে কোন পাথারের
বিস্তারিত