লজ্জার হারের পর যা বললেন সাকিব

পঞ্চম দিনের শুরু থেকেই ছিল বৃষ্টি। তাতে সাকিব আল হাসানদের কাজটাও অনেক সহজ হয়ে গিয়েছিল। কিন্তু এত ভালো খেলা আফগানরা এই টেস্ট না জিতলে অবিচার হতো। প্রকৃতি যতই বাংলাদেশকে সাহায্য করুক শেষ অবধি কিন্তু জয়টা ঠিকই তুলে নিয়েছে আফগানিস্তান।

শেষ দিনে বৃষ্টির সর্বোচ্চ চেষ্টার পরও ২১ ওভারের মতো খেলার সুযোগ হয়েছে। ১৭.২ ওভার খেলতেই চার ব্যাটসম্যান আউট হয়ে গেছেন।

ম্যাচ শেষে পরাজিত অধিনায়ক হিসেবে সাকিব আল হাসানকে এ পরাজয়ের কারণ ব্যাখ্যা করতে হলো। সে ব্যাখ্যায় ব্যাটসম্যানদেরই দায় দেখছেন সাকিব,‘ আমার মনে হয়, এটা দুটি কারণে হয়েছে। আমাদের ব্যাটসম্যানরা যেভাবে খেলেছে এবং আফগানদের বোলিং। একটা ভালো দল হয়ে উঠতে গেলে আমাদের অনেক কঠোর পরিশ্রম করতে হবে। ২০ বছর ধরে খেলার পর আমরা বলতে পারি না যে আমরা শিখছি।’

ব্যাটসম্যানদের দায় দেখলে সেটা সাকিবের নিজের ওপরও চলে আসে। সোমবার তিনি যে ভাবে আউট হয়েছেন সেটা অন্যায়। ৪ উইকেটে ১৯ ওভার কাটিয়ে দেওয়ার লক্ষ্য নিয়ে নেমেছিলেন। সেখানে নেমে প্রথম বলেই জহীর খানের অনেক বাইরের এক বলে কাট করতে গিয়ে কট বিহাইন্ড হয়েছেন সাকিব। তা না হলে ফল অন্যরকমও হতে পারত।

সাকিব ব্যাটসম্যানদের এমন পারফরম্যান্সের একটি কারণ খুঁজে পাচ্ছেন, তবে সেটাকে অজুহাত মানছেন না, ‘আমরা বেশ অনেক দিন পর (মার্চের পর) টেস্ট খেললাম তবে আফগানিস্তানকে কৃতিত্ব দিতেই হবে। আমাদের এখন যত দ্রুত সম্ভব এ ম্যাচ ভুলে যেতে হবে এবং টি-টোয়েন্টি সিরিজে মনোযোগ দিতে হবে। এ সংস্করণে আফগানিস্তান খুবই ভালো দল। আগামী বছর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ, তাই আমাদের টি-টোয়েন্টিতে মনোযোগ দিতে হবে।’


শেরেবাংলায় অনুশীলনে সফরকারি জিম্বাবুয়ে
আজ মিরপুর হোম অব ক্রিকেটে প্রথম দিনের অনুশীলন করেছে রোডেশিয়ানরা।
বিস্তারিত
ব্যাপক পরিবর্তনে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টেস্ট
সফরত জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে একমাত্র টেস্টের জন্য ১৬ সদস্যের দল ঘোষণা
বিস্তারিত
ঢাকায় জিম্বাবুয়ে ক্রিকেট দল
প্রায় এক মাসের সফরে ঢাকা পৌঁছেছে জিম্বাবুয়ে ক্রিকেট দল। শনিবার
বিস্তারিত
পঞ্চম কন্যার বাবা হলেন আফ্রিদি
পঞ্চমবারের মতো কন্যা সন্তানের বাবা হলেন পাকিস্তানের সাবেক অলরাউন্ডার শহীদ
বিস্তারিত
‘প্রধানমন্ত্রী আমাদের গণভবনে নেবেন তা
অনুর্ধ্ব- ১৯ বিশ্বকাপ জয়ী দলের সদস্য শাহীন আলমকে তার নিজ
বিস্তারিত
সেই পূজাকেই বিয়ে করছেন সৌম্য!
সতীর্থদের অনেকেই বিয়ে করে ফেললেও এতদিন ধরে জীবনের গুরুত্বপূর্ণ বিষয়টি
বিস্তারিত