পণ্য সম্পর্কে মিথ্যা কসম করা

 

দ্রব্য বিক্রির জন্য মিথ্যা কসম করা বা মিথ্যা কথা বলা সম্পূর্ণরূপে নাজায়েজ, হারাম। যেমন কোনো বিক্রেতা বা ব্যবসায়ী বলল, আল্লাহর কসম, লোকে তো এত টাকা দাম বলছেই। অথবা বলল, আল্লাহর কসম, এটি কিনতেই তো আমার এত টাকা খরচ পড়েছে। অথচ তার কথাটি সত্য নয়। হাদিসে এভাবে কসম করতে নিষেধ করা হয়েছে। হজরত আবু জর গিফারি (রা.) থেকে বর্ণিত, নবী করিম (সা.) বলেছেনÑ ‘তিন ব্যক্তি এমন, যাদের দিকে আল্লাহ তায়ালা কেয়ামতের দিন তাকাবেন না এবং তাদের পবিত্র করবেন না। তাদের জন্য রয়েছে যন্ত্রণাদায়ক শাস্তি। আমি বললাম, এরা কারা ইয়া রাসুলাল্লাহ? তারা তো ব্যর্থ ক্ষতিগ্রস্ত লোক। জবাবে তিনি বললেন, যে লোক কারও উপকার করার পর তার খোঁটা দেয়, যে লোক তার পরিধেয় বস্ত্র গোড়ালির নিচে ঝুলিয়ে পরিধান করে এবং যে লোক মিথ্যা কসমের মাধ্যমে তার পণ্যের প্রচার করে।’ (তিরমিজি, প্রথম খ-)।


মানসিক স্বাস্থ্য উন্নয়নে ইসলাম
গত ১০ অক্টোবর বিশ্বজুড়ে পালিত হয়ে গেল বিশ্ব মানসিক স্বাস্থ্য
বিস্তারিত
জুলুমবাজ ও হত্যাকারীর পরিণতি
বর্তমানে চারদিকে একটি দৃশ্য ফুটে উঠছে। দুর্বলের ওপর সবলের অত্যাচার।
বিস্তারিত
কোরআনের আলোকে পরস্পরের প্রতি শিষ্টাচার
আমরা মানুষ, পৃথিবীতে আমাদের বসবাস। প্রয়োজনের তাগিদে মানুষের সঙ্গে মেলামেশা,
বিস্তারিত
পোশাকের শালীনতা
পোশাক-পরিচ্ছদ মানুষের লজ্জা নিবারণ করে। পোশাকে মানুষের রুচি, ব্যক্তিত্ব, ঐতিহ্য,
বিস্তারিত
কে এই নোবেল বিজয়ী আবি
তিনি নিজেও ওরোমো মুসলিম ছিলেন। তার বাবা ছিলেন মুসলিম আর
বিস্তারিত
মুসলিম নোবেল বিজয়ীরা
  ১৯০১ সাল থেকে নোবেল পুরস্কার দেওয়া হচ্ছে। তবে প্রথম মুসলমান
বিস্তারিত