দরুদ পাঠের ফজিলত

আমল

নবী (সা.) বলেন, ‘যে ব্যক্তি আমার ওপর একবার দরুদ পাঠ করবে, তার বিনিময়ে আল্লাহ তার ওপর দশবার দরুদ পাঠ করবেন।’ (মুসলিম : ৩৮৪)।
নবী (সা.) আরও বলেন, ‘তোমরা আমার কবরকে ঈদ তথা সম্মিলনস্থলে পরিণত করবে না, আর তোমরা আমার ওপর দরুদ পাঠ কর; কেননা তোমাদের দরুদ আমার কাছে পৌঁছে যায়, তোমরা যেখানেই থাক না কেন।’ (আবু দাউদ : ২০৪৪)।
নবী (সা.) আরও বলেন, ‘যার সামনে আমার নাম উল্লেখ করা হলো অতঃপর সে আমার ওপর দরুদ পড়ল না, সে-ই কৃপণ।’ (তিরমিজি : ৩৫৪৬)।
রাসুলুল্লাহ (সা.) আরও বলেন, ‘পৃথিবীতে আল্লাহর একদল ভ্রাম্যমাণ ফেরেশতা রয়েছে যারা উম্মতের পক্ষ থেকে প্রেরিত সালাম আমার কাছে পৌঁছে দেয়।’ (নাসাঈ : ১২৮২)। 
রাসুলুল্লাহ (সা.) আরও বলেন, ‘যখন কোনো ব্যক্তি আমাকে সালাম দেয়, তখন আল্লাহ আমার রুহ ফিরিয়ে দেন, যাতে আমি সালামের জবাব দিতে পারি।’ (আবু দাউদ : ২০৪১)। 


ইসলামের বলিষ্ঠ কণ্ঠস্বর হাফেজ এটিএম
জাতীয় সংসদ ভবন সংলগ্ন টিঅ্যান্ডটি মাঠে জানাজার বিশাল সমাবেশ প্রমাণ
বিস্তারিত
প্রসঙ্গ র‌্যাগিং, আপনিও কি একজন
মূলত র‌্যাগিং একরকম নবীনবরণের অর্থ বোঝালেও আদতে তা নবীন শিক্ষার্থীদের
বিস্তারিত
ইসলামে চুলের পরিচর্যা
স্ত্রীলোকের মাথার চুল পুরুষদের দাড়ির মতো সৌন্দর্য ও শ্রীবর্ধক। ইসলামি
বিস্তারিত
ক্বিমার ও ক্যাসিনো : ইসলামি
‘ক্যাসিনো’ জুয়া খেলার আধুনিক রূপ। এখানে সাধারণ শ্রেণির মানুষরা আসতে
বিস্তারিত
ইসলামি ইন্স্যুরেন্স ও জুয়া
ইসলামি ইন্স্যুরেন্স ও জুয়ার প্রশ্ন : শরিয়াভিত্তিক ইসলামি ইন্স্যুরেন্স প্রক্রিয়া-পদ্ধতি
বিস্তারিত
পণ্য মজুতকারী ইসলামে অভিশপ্ত
দিনক্ষণ নেই, যখন-তখন নিত্যপণ্যের দাম বাড়ে। সাধারণ মানুষের নাভিশ্বাস। কারণ
বিস্তারিত