আফগান নির্বাচনে তালেবান হামলায় নিহত ৮৫

আফগানিস্তানে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনকে কেন্দ্র করে তালেবান বিদ্রোহীদের চালানো বিভিন্ন সন্ত্রাসী হামলায় ৮৫ জন নিহত এবং আরো ৩৭০ জন আহত হয়েছেন। এসব হামলায় হতাহতদের বেশিরভাগই বেসামরিক নাগরিক। মঙ্গলবার প্রকাশিত এক জাতিসংঘ প্রতিবেদনে এ কথা জানানো হয়েছে।

আফগানিস্তানে নিযুক্ত জাতিসংঘের সহায়তা মিশন (ইউএনএএমএ) তাদের ওই প্রতিবেদনে জানায়, দেশটিতে গত মাসে অনুষ্ঠিত প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ভোট গ্রহণকালে একাধিক ভোটকেন্দ্রে হামলা চালায় তালেবান যোদ্ধারা।

গত ২৮ সেপ্টেম্বর অনুষ্ঠিত ওই নির্বাচন বর্জনের জন্য আফগান নাগরিকদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছিলো চরমপন্থি ইসলামি গোষ্ঠীটি। কিন্তু তাদের এই আহ্বান উপেক্ষা করে নির্বাচনে অংশ নেন সেখানকার সাধারণ মানুষ। যদিও বিভিন্ন সহিংসতার কারণে মোট ভোটারদের মাত্র এক চতুর্থাংশ ভোট দিতে পেরেছেন।

এ সম্পর্কে আফগানিস্তানে নিযুক্ত জাতিসংঘের বিশেষ প্রতিনিধি তাদামিচি ইয়ামামোটো বলেন, ‘ভোটার, ভোটকেন্দ্র, নির্বাচনী কর্মী, নির্বাচনী প্রচারণা ও বিভিন্ন মিছিলকে কেন্দ্র করে এসব হামলা চালানো হয়, যা কিছুতেই গ্রহলযোগ্য নয়।’ তিনি তালেবানদের এসব হামলাকে অগ্রহণযোগ্য এবং আন্তর্জাতিক মানবাধিকার আইনের লঙ্ঘন বলেও উল্লেখ করেছেন।

জাতিসংঘের রিপোর্ট অনুযায়ী, কেবল ভোট গ্রহণের দিনই ২৮ বেসামরিক লোক নিহত এবং ২৫০ জন আহত হয়েছিল। এছাড়া বাকি হতাহতের ঘটনাগুলো হয়েছিলো নির্বাচনের আগে বা পরের সহিংসতায়। আর নির্বাচন চলাকালীন এসব হামলায় হতাহতদের মধ্যে এক-তৃতীয়াংশেরও বেশি শিশু।

এছাড়া গত ২৯ সেপ্টেম্বর ১৩ জন নির্বাচনী কর্মীকে অপহরণ করে তালেবানরা। আর নির্বাচনের দিন তালেবান হামলায় আহত হয়েছেন আরো ১১ কর্মী।

তবে তালেবানদের হুমকি অগ্রাহ্য করে ভোটাধিকার প্রয়োগ করায় আফগানিস্তানের সাধারণ মানুষদের প্রশংসা করেছেন ইয়ামামোতো।

যদিও জাতিসংঘের এই রিপোর্ট সম্পর্কে তাৎক্ষণিকভাবে তালেবান গোষ্ঠীর প্রতিক্রিয়া জানা যায়নি।

প্রসঙ্গত, আফগানিস্তানে গত ২৮ সেপ্টেম্বর অনুষ্ঠিত প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রথম দফার ফলাফল এখনও প্রকাশিত হয়নি। নির্বাচনের ফলাফল প্রকাশে দেরি হওয়ায় দুই প্রার্থী আবদুল্লাহ আবদুল্লাহ এবং গুলবুদ্দিন হেকমতিয়ার নির্বাচন কমিশনের স্বচ্ছতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন এবং রাষ্ট্রপতি আশরাফ ঘানির বিরুদ্ধে ভোট জালিয়াতির অভিযোগ এনেছেন।

তবে অভিযোগ নাকচ করে দিয়ে নির্বাচন কমিশন বলেছে, নির্বাচনে ২৬ হাজারের বেশি বায়োমেট্রিক মেশিন ব্যবহার করা হয়েছে। এসব মেশিন থেকে তথ্য সার্ভারে স্থানান্তরের সময় যান্ত্রিক গোলযোগ দেখা দেওয়ায় ফলাফল প্রকাশে বিলম্ব হচ্ছে। চলতি মাসের শেষ নাগাদ ফলাফল প্রকাশ করা হতে পারে বলেও কমিশন জানিয়েছে।

সূত্র: দুনিয়া নিউজ


অনলাইন ক্লাসের চাপ, গায়ে আগুন
বাড়িতে থাকা টিভি নষ্ট, নেই স্মার্টফোনও। কিন্তু ক্লাস করতে হবে
বিস্তারিত
কালই আঘাত হানতে পারে ঘূর্ণিঝড়
ঘূর্ণিঝড় আম্পানের তাণ্ডবের রেশ এখনো কাটিয়ে উঠতে পারেনি ভারতের পশ্চিমবঙ্গ।
বিস্তারিত
করোনার ‘গেম চেঞ্জার’ ওষুধ আবিষ্কার
করোনাভাইরাসে বিপর্যস্তের তালিকায় তৃতীয় অবস্থানে রয়েছে বিশ্বের অন্যতম পরাশক্তি রাশিয়া।
বিস্তারিত
যুক্তরাষ্ট্রের বিক্ষোভে চোখ হারালেন সাংবাদিক
কৃষ্ণাঙ্গ হত্যার কারণে উত্তাল যুক্তরাষ্ট্রে বিক্ষোভের ছবি তুলতে গিয়ে চোখ
বিস্তারিত
শরীরে করোনার উপসর্গ নেই, নীরবে
করোনাভাইরাস সংক্রমিত কোভিড-১৯ রোগের লক্ষণ হিসেবে জ্বর, কাশি, গলাব্যথা ও
বিস্তারিত
করোনাভাইরাস এখনো অনেক শক্তিশালী :
শিগগির করোনাভাইরাসের দুর্বল হয়ে পড়ার কোনো সম্ভাবনা নেই। এটি এখনো
বিস্তারিত