গণভবনে ভিডিও কনফারেন্স

বিএনপি সরকারের রেল বন্ধের সিদ্ধান্ত ছিল আত্মঘাতী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, একটি আন্তর্জাতিক সংস্থার প্রেসক্রিপশনের প্রেক্ষিতে তৎকালিন বিএনপি সরকারের জনবান্ধব রেলকে বন্ধ করে দেয়ার সিদ্ধান্ত ছিল দেশের জন্য আত্মঘাতী।

তিনি বলেন, ‘আমি মনে করি, রেল বন্ধ করে দেওয়া, আমাদের দেশের জন্য একটা আত্মঘাতী সিদ্ধান্ত ছিল। একটা দেশের যোগাযোগের জন্য রেলপথ, সড়ক পথ, নৌপথ এবং সেই সাথে বিমান- সবগুলো পথই চালু থাকা দরকার।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, কোন এক আন্তর্জাতিক সংস্থার নির্দেশনা ছিল যে, যেটা লাভজনক নয় তা বন্ধ করে দেয়ার। সেই নির্দেশনায় বিএনপি ক্ষমতায় থাকতে রেল যোগাযোগটাকেই সম্পূর্ণ বন্ধ করে দেয়ার জন্য অনেকগুলো রেললাইন এবং রেল স্টেশন বন্ধ করে দেয়।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বুধবার (১৬ অক্টোবর) বেলা সাড়ে ১১টায় গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে কুড়িগ্রাম-ঢাকা-কুড়িগ্রাম রুটে নতুন আন্তঃনগর ট্রেন ‘কুড়িগ্রাম এক্সপ্রেসে’র আনুষ্ঠানিক উদ্বোধনকালে প্রদত্ত ভাষণে একথা বলেন।

তিনি একই সঙ্গে রংপুর এক্সপ্রেস ও লালমনি এক্সপ্রেস ট্রেনের র‌্যাকে নতুন কোচ প্রতিস্থাপনেরও উদ্বোধন করেন। প্রধানমন্ত্রী বলেন, অত্যন্ত দুর্ভাগ্যের বিষয় হলো বাংলাদেশের রেল যোগাযোগ হলো এদেশের সাধারণ এবং মধ্যবিত্তের অন্যতম একটি চলাচলের মাধ্যম। যারা ক্ষমতায় ছিল (বিএনপি নেতৃত্বাধীন সরকার) তারা রেলকে ধ্বংসের এবং একে বন্ধ করে দেয়ার পরিকল্পনা করেছিল।


টিভিকর্মীদের আইনি সুরক্ষা দেবে সরকার:
টেলিভিশন মাধ্যমে যারা কাজ করেন তাদের চাকরির অনিশ্চয়তা, বিনা কারণে
বিস্তারিত
বৈঠকে হাসিনা-মমতা
কলকাতার ইডেন উদ্যানে শুক্রবার শুরু হচ্ছে ভারত-বাংলাদেশ দিন রাতের গোলাপি
বিস্তারিত
চালকদের দাবিগুলো মন্ত্রণালয়ে পাঠানো হয়েছে
স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, ‘২০১৮ সালে পাস হওয়া আইন
বিস্তারিত
শ্রমিকদের অবস্থান নিয়ে সিদ্ধান্ত শুক্রবার:
পণ্যবাহী ট্রাক ধর্মঘট প্রত্যাহার হলেও নতুন সড়ক আইন সংশোধনের দাবিতে
বিস্তারিত
ছয় লাখ টন ধান কিনবে
কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক বলেছেন, কৃষকরা ন্যায্যমূল্য পাচ্ছে না। কিন্তু
বিস্তারিত
সেনাবাহিনীকে শৃঙ্খলা মেনে চলার আহ্বান
শৃঙ্খলা মেনে গণতান্ত্রিক ধারা অব্যাহত রাখতে সশস্ত্রবাহিনীকে কাজ করে যাওয়ার
বিস্তারিত