চোখের যত্ন নেবেন কী ভাবে?

ইদানিং ঠিক কজন মানুষ চশমা ছাড়া ভালভাবে দেখতে পান তা অনায়াসে হাতে গুনেই বলে দেওয়া যায়। আর এই গোদের ওপর বিষফোঁড়ার মতো রয়েছে স্মার্টফোন আর কম্পিউটরের রমরমা। টানা ন’ঘন্টা কম্পিউটরের সামনে বসে থেকে কাজ। বা ফোনে সারাদিন খুঁটিনাটি। এসবে চোখের অবস্থা একেবারেই শোচনীয়। চশমার কাঁচও মোটা হচ্ছে পাল্লা দিয়ে। এই তালিকায় যদি আপনারও নাম থাকে তাহলে আপনার জন্য দেওয়া রইল চোখ ভাল রাখার কিছু উপায়। একবার চোখ বুলিয়ে নিন, আর অফিসে বসেই চলতে থাকুক চোখের ব্যায়াম।

কম্পিউটারে কাজ করার সময় খেয়াল রাখুন চারদিক থেকে অতিরিক্ত আলো যেন আপনার কম্পিউটরে এসে না পড়ে। প্রয়োজনে কম্পিটারের ব্রাইটনেস অ্যাডজাস্ট করে নিন।

ঘন ঘন চোখের পাতা ফেলুন। সাধারণত প্রতি ৩-৪ সেকেন্ড পরপর চোখের পাতা ফেলা চোখের ছোটোখাটো সমস্যার সমাধান করে, একটানা কাজ থেকে চোখকে বিশ্রামও দেয়। এতে দৃষ্টিশক্তি ভাল থাকে। যাঁরা কম্পিউটার ও মোবাইল ফোন বেশি ব্যবহার করেন, তাঁদের চোখের রেটিনা শুকিয়ে যাওয়ার সমস্যা দেখা দিতে পারে। তাঁদের ক্ষেত্রে এই “আই ব্লিংকিং” ব্যায়াম খুবই উপযোগী। এতে চোখ শুকিয়ে যাওয়ার সমস্যা কমে এবং চোখের রক্ত সরবরাহ বৃদ্ধি পায়।

কাজের ফাঁকে চোখকে বিশ্রাম দিন, অন্তত ৩০ মিনিট অন্তর কাজ বন্ধ রাখুন ২-৩ মিনিটের জন্য। চোখ বন্ধ করে বসে থাকতে পারেন, বা এদিক ওদিক হেঁটে আসুন। দিনে বেশ কয়েকবার এভাবে করুন। এতে চোখের রক্ত সরবরাহ বাড়বে এবং চোখের পেশি সক্রিয় থাকবে।

মাঝে মাঝে চোখে জলের ঝাপটা দিন। সারাদিনে ১০ থেকে ১৫ বার চোখে জলের ঝাপটা দিন। তাতে চোখ ঠাণ্ডা থাকে। চোখ আর্দ্র হয় ও রক্তসঞ্চালন বাড়ে। তবে একদম ঠাণ্ডা বা মাত্রাতিরিক্ত গরম জল দেবেন না চোখে।

চোখ ভাল রাখতে গাজরের পাশাপাশি প্রচুর পরিমাণে সবুজ শাক-সবজি, বাদাম, কমলালেবু খান। টাটকা শাক-সবজিতে থাকে প্রচুর পরিমাণ অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট, ভিটামিন এ এবং ভিটামিন সি। যা চোখের কর্নিয়া ভাল রাখতে সাহায্য করে।

পর্যাপ্ত ঘুম প্রয়োজন। সারাদিনের কাজের পর অন্তত আট ঘণ্টা ঘুম জরুরী। খেয়াল রাখুন রাতে ঘুমের আধঘণ্টা আগে ফোন বা ল্যাপটপ বন্ধ করে দিন। ওদিকে আর দেখবেন না।


২ হাজার ৪৬ জনকে চাকরি
ব্যাংকার্স সিলেকশন কমিটির সদস্যভুক্ত সাতটি ব্যাংক ও দুইটি আর্থিক প্রতিষ্ঠানে
বিস্তারিত
জেনে রাখেন কমলা খাবেন যে
শীতকালে বাজারে প্রচুর কমলা পাওয়া যায়। কিন্তু সুস্বাধু এই ফলের
বিস্তারিত
প্রস্রাব ধরে রাখতে না পারলে
প্রস্রাব ধরে রাখতে সমস্যা হওয়ার কারণ হঠাৎ মূত্রথলি সংকুচিত বা
বিস্তারিত
কচি আমপাতায় সারাবে যেসব রোগ
শীত শেষ হয়ে শুরু হচ্ছে বসন্ত। তার সঙ্গে আগমন ঘটেছে
বিস্তারিত
ভ্যালেন্টাইন্স ডে’তে সাবধান, চুমুতে ছড়াতে
‘ঠোঁটে ঠোঁট রেখে ব্যারিকেড কর, প্রেমের পদ্যটাই। বিদ্রোহ আর চুমুর
বিস্তারিত
ক্যানসারে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি বেশি
খাওয়া-দাওয়া, তেজস্ক্রিয়তা, পুরোনো ক্ষতসহ নানা কারণেই শরীরে বাসা বাঁধতে পারে
বিস্তারিত