ট্রেন দুর্ঘটনার কারণ দুই চালকের ঘুম

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবায় মন্দবাগ ট্র্যাজেডির কারণ এবং এ জন্য দায়ী ব্যক্তিদের শনাক্ত করেছে তদন্ত কমিটি; করেছে বেশ কিছু সুপারিশও। নির্দেশনা অনুযায়ী গতকাল বৃহস্পতি-বার প্রতিবেদন জমা দেওয়ার কথা ছিল। শেষ মুহূর্তে একদিন সময় বাড়ানো হয়েছে। তদন্তে যা উঠে এসেছে, সে সম্পর্কে ৯৯ শতাংশ নিশ্চিত কমিটির সদস্যরা। এক শতাংশ অনিশ্চয়তার কারণে সিদ্ধান্তহীনতায় ভুগছেন তারা। এ কারণে কর্তৃপক্ষের কাছে আরও একদিন সময় চাওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন কমিটির আহ্বায়ক বিভাগীয় পরিবহন কর্মকর্তা (ডিটিও) নাছির উদ্দিন। বিশ্বস্ত সূত্রে জানা গেছে, ভয়াবহ এ দুর্ঘটনার জন্য তূর্ণা নিশীথার চালক, সহকারী চালক ও গার্ডকে দায়ী করেছে তদন্ত কমিটি।

এদিকে মন্দবাগ ট্রেন দুর্ঘটনার তদন্ত প্রতিবেদন আগামী সপ্তাহে প্রকাশ করা হবে বলে জানিয়েছেন রেলপথমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন। গতকাল মন্ত্রণালয়ের নিজ কার্যালয়ে বসে সাংবাদিকদের এ কথা জানান তিনি। বলেন, রেলপথ মন্ত্রণালয় ও রেলওয়ে গঠিত কমিটির রিপোর্ট পর্যালোচনা করে একসঙ্গে ৩টি প্রতিবেদন প্রকাশ করা হবে। প্রাথমিকভাবে মনে হচ্ছে আনুমানিক ৫০ লাখ টাকার সম্পদ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

মন্ত্রী জানান, তদন্তে দায়ীদের নাম বেরিয়ে আসবে এবং তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে। ভবিষ্যতে যেন এ ধরনের দুর্ঘটনা না ঘটে, সে অনুযায়ী কাজ করা হবে। তিনি আরও বলেন, দুর্ঘটনায় নিহত প্রত্যেকের পরিবারকে আমরা এক লাখ টাকা করে আর্থিক সহায়তা দেব। আহতদেরও আর্থিক সহায়তা দেওয়ার উদ্যোগ নিয়েছি। দুর্ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্তদের প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকেও আর্থিক অনুদান দেওয়া হতে পারে, আভাস দেন তিনি।

গত মঙ্গলবার ভোরে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার কসবা উপজেলার মন্দবাগ রেলওয়ে স্টেশনের প্রবেশমুখে ভয়াবহ ট্রেন দুর্ঘটনা ঘটে। ঢাকাগামী তূর্ণা নিশীথা এক্সপ্রেসের সঙ্গে সিলেট ছেড়ে আসা চট্টগ্রামগামী উদয়ন এক্সপ্রেসের সংঘর্ষে ১৬ জন নিহত হন; আহত হন ৭৬ জন। এ দুর্ঘটনার পর বিভাগীয় কর্মকর্তা পর্যায়ে ৫ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করে ২ দিনের মধ্যে প্রতিবেদন জমা দেওয়ার নির্দেশ দেন রেলওয়ের বিভাগীয় ম্যানেজার বোরহান উদ্দিন। সেই নির্দেশের ধারাবাহিকতায় গতকাল তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেওয়ার কথা ছিল। গতকাল বিকাল ৫টার দিকেও কমিটির আহ্বায়ক ডিটিও নাছির উদ্দিন জানিয়েছিলেন, প্রতিবেদন জমা দিয়ে অফিস থেকে বের হবেন। কিন্তু সন্ধ্যা পৌনে ৭টার দিকে তিনি জানান ঘটনাস্থল পরিদর্শন, সংশ্লিষ্ট ১৭ জনের বক্তব্য গ্রহণ এবং দুর্ঘটনার যাবতীয় তথ্য-উপাত্ত সংগ্রহ করে যে প্রতিবেদন

তৈরি করা হয়েছে, এর ৯৯ শতাংশ নিয়ে কোনো দ্বিমত বা সন্দেহ নেই। তিনি বলেন, কিন্তু এক শতাংশ নিয়ে আমরা কনফিউজড। ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে বিষয়টি জানিয়ে একদিন সময় বাড়ানোর আবেদন করেছি। কর্তৃপক্ষ তা গ্রহণ করেছে। আমরা আগামীকাল (আজ শুক্রবার) পুনরায় দুর্ঘটনাস্থল পরিদর্শন করব এবং বিকালে প্রতিবেদন দাখিল করব। আমরা চাই প্রতিবেদন জমা দেওয়ার পর যেন এটি নিয়ে কোনো আপত্তি না আসে।

জানা গেছে, দুর্ঘটনার জন্য তূর্ণা নিশীথার ট্রেনচালক তাছের উদ্দিন ও সহকারী চালক অপু দেকে দায়ী করা হয়েছে। দায়িত্বে অবহেলার জন্য দায়ী করা হয়েছে গার্ড আবদুর রহমানকে। দুই চালক ঘুমে ছিলেন, এ বিষয়ে কমিটি নিশ্চিত। কুয়াশা ও মাটির স্তূপের জন্য স্টেশনের সিগন্যাল দেখতে পাননি বলে চালকদের যে দাবি, তদন্তকালে এর সত্যতা পাওয়া যায়নি।

সূত্রের খবর, দুর্ঘটনার জন্য তূর্ণার চালক ও সহকারী চালককে দায়ী করার বিষয়ে বিভাগীয় যান্ত্রিক প্রকৌশলী সহমত জানালেও স্টেশনের সিগন্যাল ত্রুটি ও গার্ডকেও তিনি সমানভাবে দায়ী করতে চান। এ নিয়ে কমিটির সদস্যদের মধ্যে মতভিন্নতা দেখা দেওয়ার কারণেই মূলত বাড়তি একদিন সময় চাওয়া হয়েছে। ভিন্ন একটি সূত্রের খবর, একাধিক বিভাগের কর্মীদের দায়ী করা গেলে মূল দায়ীদের অর্থাৎ চালকদের রক্ষা করা অপেক্ষাকৃত সহজ হবে। তদন্তে তাই স্টেশন মাস্টার, গার্ড ও উদয়ন এক্সপ্রেস ট্রেনের চালকদেরও দায়ী করার চেষ্টা করা হচ্ছে।

জানা গেছে, তদন্ত কমিটির কাছে দেওয়া জবানবন্দিতে ট্রেনচালক তাছের উদ্দিন বলেছেন, সহকারী চালক অপু দেকে নিয়ে রাত পৌনে ১২টায় চট্টগ্রাম স্টেশন ছেড়ে যান। রাত বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে কুয়াশাও বাড়তে থাকে। মন্দবাগ স্টেশনের মুখে এসে ওই এলাকায় মাটির স্তূপ ও একাধিক লাইট থাকায় তিনি সিগন্যাল লক্ষ্য করতে পারেননি। পরে ডেনজার সিগন্যাল দেখে হতভম্ব হয়ে যান। এ সময় ইমার্জেন্সি ব্রেক চাপেন। কিন্তু এর পরও ট্রেনটি নিয়ন্ত্রণ করতে পারেননি। এ সময় যান্ত্রিক বিভাগের সংশ্লিষ্ট এক কর্মকর্তা প্রশ্ন করেন, এয়ার ব্রেক করা হলে ১০ সেকেন্টে ট্রেন থেমে যায় এবং সর্বোচ্চ ১০ মিটার পর্যন্ত সামনে যেতে পারে ট্রেনটি। কিন্তু তাছের যদি এয়ার ব্রেক চেপেই থাকেন, তবে কেন এর পরও ট্রেনটি ৭৪০ মিটার পর্যন্ত গিয়েছে? এর উত্তর দিতে পারেননি তাছের উদ্দিন।


সিরাজদিখান আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন
মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখানে দ্বিধা দন্ধের মধ্যে আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন সম্পন্ন
বিস্তারিত
মৈত্রী সম্মাননা পেলেন রসিক প্যানেল
‘মৈত্রী সম্মাননা-২০১৯’ পেলেন রংপুর সিটি করপোরেশনের প্যানেল মেয়র মাহমুদুর রহমান
বিস্তারিত
বটি দিয়ে গৃহবধূর মাথার চুল
সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় মিথ্যা অপবাদে এক গৃহবধূর মাথার চুল কাটার ঘটনায়
বিস্তারিত
আমতলীতে কৃষি মেলা শুরু
বরগুনার আমতলী উপজেলার মহিষকাটা ইউনুস আলী খান ডিগ্রী কলেজ মাঠে
বিস্তারিত
সিরাজগঞ্জে অসহায় শিশুদের মাঝে শীতবস্ত্র
সিরাজগঞ্জে এতিম ও অসহায় শিশুদের মধ্যে শীতবস্ত্র বিতরণ করা হয়েছে।
বিস্তারিত
নকলায় আমন ধান সংগ্রহে লটারির
শেরপুরের নকলায় সরাসরি কৃষকের কাছ থেকে চলতি মৌসুমের আমন ধান
বিস্তারিত