logo
প্রকাশ: ১২:২০:০৫ AM, বুধবার, জুলাই ১৭, ২০১৯
রিফাত হত্যায় মিন্নি জড়িত: পুলিশ
বরগুনা প্রতিনিধি

বরগুনায় প্রকাশ্যে খুন হওয়া রিফাত শরীফের স্ত্রী মিন্নিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। আজ দিনে তাকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের পর রাতে গ্রেফতার করা হয়।

মঙ্গলবার (১৬ জুলাই) সকালে বরগুনার বাসা থেকে মিন্নি ও তার বাবাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নিয়ে যায় পুলিশ। পরে জিজ্ঞাসাবাদে হত্যাকাণ্ডে সংশ্লিষ্টতা পাওয়ায় রাতে মিন্নিকে গ্রেফতার দেখানো হয়।

শনিবার বরগুনায় চাঞ্চল্যকর রিফাত শরীফ হত্যা মামলার বাদি নিহত রিফাত শরীফের বাবা দুলাল শরীফ সংবাদ সম্মেলন করে মিন্নির দিকে অভিযোগের আঙ্গুল তুলেন এবং তাকে গ্রেফতারের দাবি জানান। পরে মিন্নিকে গ্রেফতারের দাবি জানিয়ে মানববন্ধন করেন এলাকাবাসী।

এর পরদিন সাংবাদিকদের ডেকে সব অভিযোগ অস্বীকার করে মিন্নি দাবি করেন তার শ্বশুরের কথার কোনো ঠিক নাই। তিনি অসুস্থ।

এর আগে, হত্যাকাণ্ডের প্রধান আসামি বন্দুকযদ্ধে নিহত নয়ন বন্ডের মা শাহিদা বেগমও মিন্নিকে জড়িয়ে বিবৃতি দেন।

এদিকে গ্রেফতারের পর জেলা পুলিশ সুপার (এসবি) একটি সংবাদ বিজ্ঞপ্তি গণমাধ্যমে পাঠান।

বিজ্ঞপ্তিতে পুলিশ জানায়, গত ২৬ জুন রিফাত শরীফকে প্রকাশ্যে কুপিয়ে হত্যার পর এখন পর্যন্ত বিভিন্ন জায়গায় অভিযান চালিয়ে এজাহারভুক্ত ৭ আসামিকে গ্রেফতার করে। এর মধ্যে নয়ন বন্ড বন্দুকযুদ্ধে নিহত হয়। এছাড়া আরো ৭ জনকে সন্দেভাজন হিসেবে গ্রেফতার করা হয়। মামলার মূল রহস্য উদঘাটন ও সুষ্ঠু তদন্তের জন্য এ মামলার ১ নং সাক্ষী আয়শা সিদ্দিকা মিন্নি (২০)কে ডেকে এনে মামলার ঘটনা সংক্রান্তে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। তদন্তকারী কর্মকর্তা কর্তৃক প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ও সুদীর্ঘ সময় যাবৎ প্রাপ্ত তথ্যাদি পর্যালোচনা ও বিশ্লেষণ পূর্বক হত্যাকাণ্ডের সাথে তাদের সংশ্লিষ্টতা প্রাথমিকভাবে প্রতীয়মান হওয়ায় মামলার মূল রহস্য উদঘাটন এবং সুষ্ঠু তদন্তের নিমিত্তে আয়শা সিদ্দিকা মিন্নি রাত ৯টায় গ্রেফতার করা হয়।

সম্পাদক ও প্রকাশক : কাজী রফিকুল আলম । সম্পাদক ও প্রকাশক কর্তৃক আলোকিত মিডিয়া লিমিটেডের পক্ষে ১৫১/৭, গ্রীন রোড (৪র্থ-৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২০৫ থেকে প্রকাশিত এবং প্রাইম আর্ট প্রেস ৭০ নয়াপল্টন ঢাকা-১০০০ থেকে মুদ্রিত। বার্তা, সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক বিভাগ : ১৫১/৭, গ্রীন রোড (৪র্থ-৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২০৫। ফোন : ৯১১০৫৭২, ৯১১০৭০১, ৯১১০৮৫৩, ৯১২৩৭০৩, মোবাইল : ০১৭৭৮৯৪৫৯৪৩, ফ্যাক্স : ৯১২১৭৩০, E-mail : [email protected], [email protected], [email protected]