logo
প্রকাশ: ০৮:৩৭:৩১ PM, সোমবার, জুলাই ২২, ২০১৯
তুরাগ নদে প্রাইভেট কার, গড়াচ্ছে সময় বাড়ছে ক্ষোভ
সাভার প্রতিনিধি

রাজধানীর উপকন্ঠ সাভারের আমিনবাজার সালেহপুর ব্রীজে তুরাগ নদীতে পড়ে যাওয়ার প্রায় ২৪ ঘন্টা পরও প্রাইভেট কারটি উদ্ধার সম্ভব হয়নি। তীব্র স্রোতের কারণে এ অভিযানে ব্যাহত হচ্ছে বলে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা দাবি করেছেন।

সোমবার সকাল থেকে পুনরায় শুরু হওয়া এ অভিযান দেখতে ভীড় জমাচ্ছেন পার্শ্ববর্তী এলাকার হাজারো মানুষ। এদের মধ্যে কেউ কেউ দাবি করছেন, প্রশাসন ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা অনুমতি দিলে তারা উদ্ধার কাজে সহায়তা করতে পারেন।

এর মধ্যেই স্থানীয় দুইজন উদ্ধার কাজের অগ্রগতির জন্য নদীতে নেমে যায়। তাদের মধ্যে একজন বলেন, আমরা এহানে ডুব পাড়তে গেছি। আমাদের আইডিয়া গাড়িটি এইটুকু জায়গার মধ্যে থাকতে পারে। তো ওরা (ফায়ার সার্ভিস) ফেড়ি এইখান থেকে নিয়ে গেছে। ওরা বলতেছে এই তোরা উঠে যা। তোদের মারব। তোদের সমস্যা হবে। তোদের ভালোর জন্যই বলতেছি। তোরা এইখান থেকে চলে যা। পরে আমরা চলে আইছি।

নিখোঁজ গাড়িতে থাকা ড্রাইভারের আত্মীয় নাসিম জানান, এখানে স্থানীয় জনগণ যারা আছেন সেই রাত থেকে তারাই বলছেন, এখানে উদ্ধার কাজে ব্যর্থতা আছে। এটা আমরা কিভাবে মেনে নিবো। আমাদের তো লাশটা দরকার। গাড়িটা না হোক। তার দুইটা বাচ্চা মেয়ে আছে তারা শুধু লাশটা চায়।

ফায়ার সার্ভিসের উপ-সহকারী পরিচালক মো. মিজানুর রহমান জানান, আমরা আমাদের সাধ্য মতো চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি। আমাদের পূর্ব অভিজ্ঞতা থেকে কাজ করে যাচ্ছি।

বিআরটিএ ও নৌবাহিনীর সহায়তা নিবেন কিনা এমন প্রশ্নে তিনি জানান, আমরা এখনো প্রয়োজন মনে করছি না। তবে তারা চাইলে যৌথভাবে কাজ করা যেতে পারে। এদিকে প্রাথমিকভাবে চালক ও গাড়িটির মালিকানা পরিচয় পাওয়া গেছে।

সম্পাদক ও প্রকাশক : কাজী রফিকুল আলম । সম্পাদক ও প্রকাশক কর্তৃক আলোকিত মিডিয়া লিমিটেডের পক্ষে ১৫১/৭, গ্রীন রোড (৪র্থ-৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২০৫ থেকে প্রকাশিত এবং প্রাইম আর্ট প্রেস ৭০ নয়াপল্টন ঢাকা-১০০০ থেকে মুদ্রিত। বার্তা, সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক বিভাগ : ১৫১/৭, গ্রীন রোড (৪র্থ-৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২০৫। ফোন : ৯১১০৫৭২, ৯১১০৭০১, ৯১১০৮৫৩, ৯১২৩৭০৩, মোবাইল : ০১৭৭৮৯৪৫৯৪৩, ফ্যাক্স : ৯১২১৭৩০, E-mail : [email protected], [email protected], [email protected]