আজকের পত্রিকাআপনি দেখছেন ২৫-১১-২০১৭ তারিখে পত্রিকা

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন

চুক্তি প্রকাশের দাবি বিএনপির

নিজস্ব প্রতিবেদক
| প্রথম পাতা

রোহিঙ্গাদের ফেরত পাঠাতে মিয়ানমারের সঙ্গে করা সমঝোতা চুক্তি নিয়ে হতাশা ও সংশয় প্রকাশ করেছে বিএনপি। ফিরে যাওয়ার পর রোহিঙ্গাদের নিরাপত্তার কোনো গাইডলাইন না থাকা এবং চুক্তির বিষয়ে বিস্তারিত তথ্য সরকার প্রকাশ না করায় দলটি এ হতাশার কথা জানিয়েছে। শুক্রবার নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এ হতাশা প্রকাশ করেন।

তিনি সতর্ক করে দিয়ে বলেন, মিয়ানমারে বর্বরতা বন্ধ না করে রোহিঙ্গাদের ফেরত পাঠানো হলে, তা হবে তাদের নরকে ঠেলে দেয়ার মতো। আমরা খুব হতাশ হয়েছি। ওই চুক্তির মূল বিষয়গুলো আমরা জানি না, জনসম্মুখে আনা হয়নি। এ চুক্তির ফলে রোহিঙ্গারা কতটুকু আস্থা ফিরে পাবেন, যে তারা সেই জায়গায় আবার ফিরে যাবেন? সে জায়গায় তাদের নিরাপত্তা থাকবে কিনা, আবার তারা সেই গণহত্যার শিকার হবে কিনাÑ এসব বিষয়ে এখন পর্যন্ত আমরা কিছুই জানি না।
মির্জা ফখরুল বলেন, এখনও মিয়ানমার সেনাবাহিনী নির্যাতন করছে, অত্যাচার করছে। প্রতিদিনই মিয়ানমার থেকে বহু লোক বাংলাদেশে আসছে। এ অত্যাচার-নির্যাতন-গণহত্যা বন্ধ না করে আবার সেখানে তাদের ফিরিয়ে নেয়ার চেষ্টা করাÑ এটা আমরা মনে করি, আরেকটি নরকের মধ্যে তাদের ঠেলে দেয়ার মতো সমস্যা হবে। মিয়ানমার সরকারের সঙ্গে করা ওই চুক্তিতে কী কী আছেÑ তা প্রকাশ করার দাবি জানান বিএনপি মহাসচিব।
তিনি বলেন, আমরা আশা করব, মিয়ানমারের সঙ্গে বাংলাদেশ সরকারের চুক্তিতে তাদের (রোহিঙ্গা) সত্যিকার অর্থে নাগরিকের মর্যাদা দিয়ে ফিরিয়ে নেয়ার ব্যবস্থা থাকবে। অন্যথায় এটা একেবারেই ব্যর্থ একটি চুক্তি হবে বলে আমরা বিশ্বাস করি। তিনি অভিযোগ করেন, মিয়ানমারে যে গণহত্যা চলছে তা বাংলাদেশ সরকার সেভাবে তুলেও ধরেনি।
বিএনপির মহাসচিব বলেন, গুম নিয়ে প্রধানমন্ত্রী যে কথা বলেছেন, তাতে তারা এটা স্বীকার করে নিয়েছেন যে, গুম হচ্ছে এবং তারা এ গুমের সঙ্গে জড়িত। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে দিয়ে প্রতিপক্ষকে গুম করে ফেলা হচ্ছে বলে অভিযোগ করেন তিনি। ফখরুল বলেন, সরকার ঘনিষ্ঠ কিছু ব্যবসায়ীকে লুটপাটের সুযোগ করে দিতে আবারও বিদ্যুতের দাম বাড়িয়েছে।