আজকের পত্রিকাআপনি দেখছেন ৩-০৯-২০১৮ তারিখে পত্রিকা

সংসদ নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহারের সিদ্ধান্ত সঠিক -শাজাহান খান

মাদারীপুর প্রতিনিধি
| খবর

নৌপরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান বলেছেন, জাতীয় সংসদের নির্বাচন স্বচ্ছ, পরিচ্ছন্ন ও গ্রহণযোগ্য করার লক্ষ্যে নির্বাচন কমিশন ১০০ আসনে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন-ইভিএম ব্যবহারের সিদ্ধান্ত সঠিক নিয়েছে। নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহারে বিএনপির বিরোধিতা কোনো প্রভাব ফেলবে না। ইভিএম কেনার ব্যাপারে নির্বাচন কমিশনের সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত। রোববার মাদারীপুর সার্কিট হাউসে জয় বাংলা উৎসবের প্রস্তুতি সভা শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

নৌমন্ত্রী বলেন, কয়েকটি স্থানীয় সরকার নির্বাচনে এরই মধ্যে ইভিএম ব্যবহার করে সফলতা পেয়েছে নির্বাচন কমিশন। এক সময় মানুষ সিল দিতেও পারত না, সিল দেওয়া শিখেছে। তেমনি ইভিএম পদ্ধতি একবার চালু হলে মানুষ সেটার প্রতিও আস্থা পাবে। একটি নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহার হলেই মানুষের চর্চা হয়ে যাবে, জনগণ ভালোভাবে এটি বুঝতে পারবেন। তিনি আরও বলেন, আওয়ামী লীগ প্রতিষ্ঠিত হয়েছে জনগনের ওপর ভিত্তি করে, চক্রান্ত করে আওয়ামী লীগ সরকার গঠন হয়নি। বিএনপি ষড়যন্ত্র ও চক্রান্তে বিশ্বাস করে, তারা বঙ্গবন্ধুকে হত্যার মধ্য দিয়ে ক্ষমতায় এসেছিল। জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহারে বিএনপির বিরোধিতা কোনো প্রভাব ফেলবে না। ইভিএম কেনার ব্যাপারে নির্বাচন কমিশনের সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত।
শাজাহান খান বলেন, আমাদের ভবিষ্যৎ প্রজন্ম কঠিন ঝুঁকির মধ্যে পড়তে যাচ্ছে। কারণ জামায়াতে ইসলাম কিন্তু বসে নেই। তারা সুকৌশলে আমাদের ছেলে-মেয়ে, শিশু-কিশোরদের মগজ ধোলাই দিয়ে যাচ্ছে। সেই মগজ ধোলাইয়ের বিরুদ্ধে পাল্টা মগজ ধোলাই দিতে হবে। এজন্যে বিভিন্ন উৎসব করতে হবে। মন্ত্রী এ সময় বিভিন্ন স্কুল-কলেজের শিক্ষকদের মুক্তিযুদ্ধের চেতনা শিক্ষার্থীদের মাঝে ছড়িয়ে দিতে অনুরোধ করেন।
মাদারীপুর সার্কিট হাউজ মিলনায়তনে আয়োজিত ‘জয় বাংলা’ উৎসবের প্রস্তুতি সভায় নৌপরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন। এ সময় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন জেলা প্রশাসক ওয়াহিদুল ইসলাম, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মিয়াজ উদ্দিন খান, পুলিশ সুপার সুব্রত কুমার হালদার, সাবেক পৌর মেয়র খলিলুর রহমান শান প্রমুখ। এ সময় জয় বাংলা উৎসবের জন্যে একটি উদযাপন কমিটি গঠন করা হয়। পরে মন্ত্রী মাদারীপুরের বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কর্মকা- পরিদর্শন করেন।