আজকের পত্রিকাআপনি দেখছেন ৫-০৯-২০১৮ তারিখে পত্রিকা

‘মানিলন্ডারিং অ্যান্ড কমবেটিং ফাইন্যান্সিং অব টেরোরিজম’ মিটিং অনুষ্ঠিত

| অর্থ-বাণিজ্য

বাংলাদেশ ফাইন্যান্সিয়াল ইন্টেলিজেন্স ইউনিটের (বিএফআইইউ) উদ্যোগে টেকনাফের সব তফসিলি ব্যাংকের শাখা ব্যবস্থাপক ও সব কর্মকর্তাদের অংশগ্রহণে লিড ব্যাংক পদ্ধতিতে ‘মানিলন্ডারিং অ্যান্ড কমবেটিং ফাইন্যান্সিং অব টেরোরিজম’ শীর্ষক প্রথম টাউন হল মিটিং শনিবার টেকনাফের পর্যটন হোটেল নে-টং-এ অনুষ্ঠিত হয়। বাংলাদেশ ব্যাংকের ডেপুটি গভর্নর, এশিয়া প্যাসিফিক গ্রুপ অন মানিলন্ডারিংয়ের (এপিজি) কো-চেয়ার  এবং বিএফআইইউ প্রধান আবু হেনা মোহা. রাজী হাসান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন। বাংলাদেশ ব্যাংকের জেনারেল ম্যানেজার ও বিএফআইইউ’র অপারেশনাল হেড মো. জাকির হোসেন চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেডের ডেপুটি ম্যানেজিং ডিরেক্টর ও ক্যামেলকো আবু রেজা মো. ইয়াহিয়া, আল আরাফাহ্ ইসলামী ব্যাংকের ডেপুটি ম্যানেজিং ডিরেক্টর ও ক্যামেলকো মোহাম্মদ জুবায়ের ওয়াফা এবং ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংকের ডেপুটি ম্যানেজিং ডিরেক্টর ও ক্যামেলকো মো. মোস্তফা খায়ের। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন বিএফআইইউ’র ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার মো. শওকাতুল আলম। সভায় ‘কমবেটিং দি ফাইন্যান্সিং অব টেরোরিজম অ্যান্ড আদার ফাইন্যান্সিয়াল ক্রাইমস-রোলস অব ব্যাংক’ বিষয়ে প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন বিএফআইইউ’র জয়েন্ট ডিরেক্টর মোহাম্মদ আবদুর রব। আবু হেনা মোহা. রাজী হাসান প্রধান অতিথির ভাষণে বলেন, প্রধানমন্ত্রী মিয়ানমার থেকে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের  মানবিক কারণে বাংলাদেশে আশ্রয় দিয়েছেন। বর্তমানে এ অঞ্চলে দেশীয় ও বহুজাতিক বিভিন্ন এনজিও কাজ করছে। এ পরিস্থিতিতে মানব পাচার, অবৈধ অস্ত্র ব্যবসা ও জঙ্গি অর্থায়নের সম্ভাব্য ঝুঁকি প্রতিরোধে সচেতনতা আরও বৃদ্ধির জন্য তিনি ব্যাংক কর্মকর্তাদের প্রতি আহবান জানান। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি