আজকের পত্রিকাআপনি দেখছেন ৭-০৯-২০১৮ তারিখে পত্রিকা

নেপালের সম্ভাবনা ভুটানের বিদায়

স্পোর্টস রিপোর্টার
| খেলা

২০১৬ সালের ১০ অক্টোবর থিম্পুতে ভুটানের কাছে ৩-১ গোলে হার এখনও ভুলতে পারছেন না বাংলাদেশি ফুটবল সমর্থকরা। দুই দিন আগে ঘরের মাঠে ২-০ গোলে ভুটানিদের হারিয়ে সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ শুরু করেন স্বাগতিকরা। ওই দিনের মতো কাল আরেক দফা খুশি হয়েছেন তারা! কারণ নেপালের কাছে দক্ষিণ এশিয়ার খুদে দেশটি হেরেছে ৪-০ গোলে! টানা দুই ম্যাচ হেরে টুর্নামেন্ট থেকে বিদায় নিয়েছে চেনচো-সিদ্রুপরা। শনিবার পাকিস্তানের বিপক্ষে শেষ ম্যাচটি হবে তাদের স্রেফ মর্যাদার। 

ভুটানের হারে সমর্থকরা খুশি হলেও পরিস্থিতি কঠিন হয়েছে স্বাগতিকদের (রাতে বাংলাদেশ-পাকিস্তান ম্যাচ শুরু না হওয়া পর্যন্ত)! কারণ এভারেস্টের দেশের ফুটবলারদের সামনে এখন শেষ চারে খেলার সম্ভাবনা তৈরি হয়েছে। শনিবার শেষ ম্যাচে বাংলাদেশের বিপক্ষে ম্যাচেই তাদের সেমিফাইনাল ভাগ্য নির্ধারণ করবে। দুই ম্যাচে নেপালের পয়েন্ট হলো ৩। বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে কাল দূরন্ত গতির ফুটবল খেলেছে নেপাল, বিশেষ করে শেষ মিনিট বিশেক। যদিও প্রতিপক্ষ এ সময় ১০ জন নিয়ে খেলেছে নিমা ওয়াংদি লালকার্ড দেখায়। ৬৯ মিনিটে প্রাপ্ত পেনাল্টিতে ব্যবধান ২-০ করেন সুনীল। বিমলের শট ঠেকিয়ে দিয়েছিলেন গোলরক্ষক দেনদাপ শেরিং; ফিরতি বল গোলে পাঠান সুনীল। প্রথমার্ধে দারুণ হেডে ভুটানের গোলমুখ খোলেন অনন্ত তামাং। শেষ ১০ মিনিটে যেভাবে নেপালিরা, গোলরক্ষক প্রতিরোধ গড়তে ব্যর্থ হলে গোল আট-দশটিই হতো। পাঁচবার নিশ্চিত গোল হজম থেকে দলকে রক্ষা করেছেন দেনদাপ।