আজকের পত্রিকাআপনি দেখছেন ৮-০৯-২০১৮ তারিখে পত্রিকা

পটিয়ায় গৃহবধূর লাশ উদ্ধার

নরসিংদীতে বৃদ্ধাকে কুপিয়ে হত্যা

আলোকিত ডেস্ক
| দেশ

নরসিংদীতে বৃদ্ধাকে বঁটি দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। এছাড়া চট্টগ্রামের পটিয়ায় গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। প্রতিনিধিদের পাঠানো খবরÑ

নরসিংদী : নরসিংদীর মাধবদীতে তাহেরুন্নেসা বেগম (৬০) নামে এক বৃদ্ধাকে বঁটি দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করেছেন তার প্রতিবেশী। শুক্রবার সকালে মাধবদী থানার ডৌকাদি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত তাহেরুন্নেসা ডৌকাদি এলাকার আবুল কাশেমের স্ত্রী। নিহতের পরিবার ও পুলিশের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, গভীর রাতে ঘরের চালাতে ইটপাটকেল নিক্ষেপ নিয়ে নিহতের স্বামী আবুল কাশেমের সঙ্গে পাশের বাড়ির ইব্রাহিম মিয়ার কয়েক মাস ধরে বিরোধ চলছিল। এরই জের ধরে শুক্রবার সকালে আবুল কাশেমের সঙ্গে ইব্রাহিমের কথা কাটাকাটি হওয়ার এক পর্যায়ে তাহেরুন্নেসাও এতে জড়িয়ে পড়েন। এতে ইব্রাহিম মিয়া ক্ষিপ্ত হয়ে তাহেরুন্নেসাকে বঁটি দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করেন। মাধবদী থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. আবুল কালাম বলেন, ‘পূর্ববিরোধের জের ধরে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে বৃদ্ধাকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত ইব্রাহিম পলাতক রয়েছেন। তাকে গ্রেপ্তার করতে অভিযান চলছে। নিহতের লাশের সুরতহাল করা শেষে ময়নাতদন্তের জন্য নরসিংদী সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।
পটিয়া : চট্টগ্রামের পটিয়া পৌরসভার দক্ষিণ গোবিন্দারখীল এলাকায় মর্জিনা আকতার সাথী নামে অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। তিনি পটিয়া পৌরসভার ৮নং ওয়ার্ডের মীর কাশেম প্রকাশ জাহাজীওয়ালা বাড়ি এলাকার মহিউদ্দিন প্রকাশ লিটনের স্ত্রী। নিহতের শ্বশুর পরিবারের দাবি, বুধবার রাতে ঘরে গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করলে মর্জিনাকে উদ্ধার করে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হয়। এ সময় কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। চমেক হাসপাতালে গৃহবধূর পরিবারের লোকজন স্বামী মহিউদ্দিন ও শ্বশুর আবদুল খালেককে আটক করে পুলিশে দিয়েছে। পটিয়া থানার ওসি শেখ মোহাম্মদ নেয়ামত উল্লাহ বলেন, খবর পেয়ে পটিয়া থানার পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে স্বামী ও শ্বশুরকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে এসেছে। প্রাথমিক তদন্তে মর্জিনার গলায় ফাঁসের চিহ্ন পাওয়া গেছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলে তার মৃত্যুর কারণ নিশ্চিত করা যাবে। তদন্তের স্বার্থে আটককৃত স্বামী ও শ্বশুরকে জিজ্ঞসাবাদ করা হচ্ছে।