আজকের পত্রিকাআপনি দেখছেন ১৫-১১-২০১৮ তারিখে পত্রিকা

জাতিসংঘের প্রতিবেদন

বিশ্বে ক্ষুধার্ত মানুষের সংখ্যা বাড়ছে

আলোকিত ডেস্ক
| আন্তর্জাতিক

বিশ্বজুড়ে গেল তিন বছরে ক্ষুধার্ত মানুষের সংখ্যা বেড়েছে। বিশ্বব্যাপী জলবায়ু পরিবর্তন ক্ষুধার্ত মানুষের সংখ্যা বৃদ্ধির অন্যতম কারণ বলে মনে করছেন গবেষকরা। এজন্য জরুরি ভিত্তিতে বৈশ্বিক কার্যক্রমের আহ্বানও জানিয়েছেন তারা। জাতিসংঘের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, ২০১৭ সালে বিশ্বের ৮২ কোটি ১০ লাখ মানুষ ছিল অপুষ্টির শিকার। অর্থাৎ বিশ্বের প্রতি নয়জন মানুষের একজন প্রয়োজনীয় পুষ্টি পায় না। 

এছাড়াও পাঁচ বছরের কম এমন বয়সের ১৫ কোটির বেশি শিশু অপুষ্টিতে বেড়ে ওঠে; যা বৈশ্বিক জনসংখ্যার ২২ শতাংশ। গবেষকরা বলেছেন, জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে সৃষ্ট নানা প্রাকৃতিক দুর্যোগ তৈরি হচ্ছে। বেড়ে গেছে বন্যা, তাপপ্রবাহ, ঝড়, খরা। আর তা ক্ষুধা মেটানোর শস্য উৎপাদন ব্যাহত করছে। তারা বলছেন, যেসব দেশে শস্য উৎপাদন প্রধানত বৃষ্টির পানির ওপর নির্ভরশীল, বৃষ্টিপাতের তারতম্যে সেসব দেশে পরিস্থিতি চরম অবস্থায় পৌঁছেছে। বিশ্বের খাদ্য নিরাপত্তা ও পুষ্টিবিষয়ক শীর্ষক প্রতিবেদনটিতে আরও বলা হয়, পুষ্টিসমৃদ্ধ খাবারের কারণে বিশ্বে স্থূলকায় মানুষের সংখ্যাও বাড়ছে। প্রতি আটজন প্রাপ্তবয়স্কের মধ্যে একজন অর্থাৎ বিশ্বের প্রায় ৬৭ কোটি মানুষ স্থূলকায়। বিবিসি