আজকের পত্রিকাআপনি দেখছেন ১৩-০৯-২০১৮ তারিখে পত্রিকা

ঘরে বসেই পাওয়া যাবে নৌযানের সার্ভে সনদ : শাজাহান খান

| খবর

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার উদ্যোগ সফল হয়েছে। এখন ঘরে বসেই অনলাইনে আবেদনের মাধ্যমে নৌযানের সার্ভে সনদ পাওয়া যাবে। এতে নৌযান মালিকদের ভোগান্তি কমে আসবে। সরকার নাবিকদের জন্য অনলাইন আইডি প্রবর্তন করেছে। এর ফলে সমুদ্রগামী জাহাজে কর্মরত নাবিকরা পৃথিবীর যে কোনো প্রান্তে বসে তাদের সনদগুলো ভেরিফিকেশন করতে পারছে। ফলে বিভিন্ন পোতাশ্রয় ও বিমানবন্দরে বাংলাদেশ নাবিকদের হয়রানি বন্ধ হয়েছে। বুধবার রাজধানীর বিআইডব্লিউটিএ’র মিলনায়তনে নৌপরিবহন অধিদপ্তরের অনলাইন সেবা পূর্ণাঙ্গভাবে চালু করার লক্ষ্যে ‘সফটওয়্যার ফর ইনল্যান্ড শিপ ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম’ কার্যক্রমের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে নৌপরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান এসব কথা বলেন।

শাজাহান খান বলেন, নৌপথ সচল, নৌপথ রক্ষা ও নদীকে কাজে লাগানো এবং নৌপথের নিরাপত্তা ও যাত্রীসেবার মান উন্নয়নের লক্ষ্যে সরকার কাজ করে চলেছে। নৌযান সার্ভে ও পরিদর্শন কাজ তদারকির জন্য নৌপরিবহন অধিদপ্তরকে আধুনিকায়ন করা হয়েছে। সরকারের ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় নৌপরিবহন অধিদপ্তরের জন্য নতুন ১৫৬ পদ সৃষ্টি করা হয়েছে। নৌযান সার্ভের জন্য ২১ সার্ভেয়ারের পদ সৃষ্টি করা হয়েছে। আগে সার্ভেয়ারের পদ ছিল মাত্র চারটি। ১১ সার্ভেয়ার পদের জন্য পাবলিক সার্ভিস কমিশন এরই মধ্যে বিজ্ঞপ্তি দিয়েছে। আরও ১০ সার্ভেয়ার নিয়োগ করা হবে। পরিদর্শকের পদ ছিল আটটি। নতুন করে ১২ পরিদর্শক নিয়োগের প্রক্রিয়া শেষ পর্যায়ে রয়েছে।
অনলাইন সেবা কার্যক্রম চালু হলে একজন নৌযান মালিক তার নৌযান সার্ভের লক্ষ্যে নৌপরিবহন অধিদপ্তরের ওয়েবসাইট িি.িফড়ং.মড়া.নফ এ গিয়ে ‘অনলাইনে আবেদন’ অংশে ক্লিক করে নিবন্ধনভুক্ত হবেন। এরপর জাহাজ মালিক অনলাইন আবেদন ফরমটি পূরণ করে তার পছন্দমতো সার্ভেয়ারের কাছে সাবমিট করবেন এবং পূরণকৃত আবেদনের একটি কপি প্রিন্ট করে তাতে স্বাক্ষর দিয়ে আনুষঙ্গিক কাগজপত্রসহ সার্ভে অফিসে জমা দেবেন। প্রয়োজনীয় প্রক্রিয়া শেষে চিফ ইঞ্জিনিয়ার অ্যান্ড শিপ সার্ভেয়ার আবেদনটি যথাযথ পেলে ‘মহাপরিচালক’ বরাবর সাবমিট করবেন। মহাপরিচালক স্বয়ংক্রিয়ভাবে তৈরি আলোচ্য নৌযানটির সার্ভে সনদের নির্ধারিত স্থানে অনুমোদন প্রদান এবং সাবমিট করলে সার্ভে সনদটি স্বাক্ষরসহ আবেদনকারীর কাছে ফেরত যাবে এবং তিনি সঙ্গে সঙ্গে মোবাইল মেসেজের মাধ্যমে বিষয়টি জানতে পারবেন। সবশেষে আবেদনকারী ঘরে বসে তার নৌযানের সার্ভে সনদটি প্রিন্ট করে প্রয়োজনীয় কার্যাদি সম্পন্ন করতে পারবেন।
নৌপরিবহন অধিদপ্তরের মহাপরিচালক কমডোর সৈয়দ আরিফুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. আবদুস সামাদ, বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ চলাচল (যাত্রী পরিবহন) কর্তৃপক্ষের সহ-সভাপতি সাইদুর রহমান রিন্টু, বাংলাদেশ কার্গো ভেসেল ওনার্স অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি নুরুল হক এবং নৌপরিবহন অধিদপ্তরের চিফ ইঞ্জিনিয়ার অ্যান্ড শিপ সার্ভেয়ার মো. মঞ্জুরুল কবীর। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি