আজকের পত্রিকাআপনি দেখছেন ১৩-০৯-২০১৮ তারিখে পত্রিকা

কর্মকর্তা-কর্মচারীর মধ্যে আনন্দের বন্যা

নতুন জাহাজে প্রাণ ফিরছে শিপিং করপোরেশনে

২৭ জুলাই চীনের ডকইয়ার্ড থেকে চট্টগ্রাম বন্দরে পৌঁছে নতুন জাহাজ এমভি জয়যাত্রা

সাইফুদ্দিন তুহিন, চট্টগ্রাম
| প্রথম পাতা

ঘুরে দাঁড়াচ্ছে বাংলাদেশ শিপিং করপোরেশন (বিএসসি)। একের পর এক নতুন জাহাজ যুক্ত হচ্ছে বহরে। চলতি বছরই বহরে নতুন জাহাজের সংখ্যা পৌঁছবে পাঁচে। আগামী বছরের শুরুতে নতুন আরেকটি জাহাজের সরবরাহ পৌঁছবে চীন থেকে। এরপর বহরে নতুন পুরানো মিলিয়ে জাহাজ সংখ্যা ৯টিতে পৌঁছাবে। নতুন জাহাজের মধ্যে তিনটিই অয়েল ট্যাঙ্কার। এসব ট্যাঙ্কারে করে মধ্যপ্রাচ্য থেকে সরাসরি পরিশোধিত জ্বালানি তেল পরিবহনের সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে। বহরের জাহাজ সংখ্যা বাড়তে থাকায় কর্মকর্তা-কর্মচারীর মধ্যে বইছে আনন্দের বন্যা। তাদের প্রত্যাশা, রাষ্ট্রায়ত্ত এ প্রতিষ্ঠানটি আবার হারানো গৌরব ফিরে পাবে। শিপিং সেক্টর আবার সম্মানজনক অবস্থান গড়ে তুলবেÑ এমন প্রত্যাশাও অনেকের।

এ ব্যাপারে বিএসসির ব্যবস্থাপনা পরিচালক কমোডর ইয়াহইয়া সৈয়দ বুধবার আলোকিত বাংলাদেশকে জানান, বহরে দীর্ঘদিন পর যুক্ত হয়েছে নতুন জাহাজ এমভি জয়যাত্রা। এ মাসেই যুক্ত হচ্ছে আরেকটি নতুন জাহাজ এমভি সমৃদ্ধি। নতুন জাহাজ বহরে যুক্ত শেষ হলে বিএসসির অপারেশনাল কাজে গতি আসবে। গতিশীল হবে সংস্থার সার্বিক কার্যক্রম। 

স্বাধীনতার পর বিএসসির জাহাজ সংখ্যা ছিল ৩৮। বিক্রি করতে করতে একসময় বহরের জাহাজ সংখ্যা নেমে আসে ১২টিতে। কিন্তু পুরানো হওয়ায় ১২টির স্থলে বাস্তবে পাঁচ থেকে ছয়টি জাহাজ অপারেশনাল কাজে যুক্ত থাকত। এতে পুরানো জাহাজগুলো মেরামতেই দিনের পর দিন অলস সময় পার করত। এজন্য বিএসসিতে লাভের চেয়ে ক্ষতির পাল্লাই ভারি হতো। মহাজোট সরকার দায়িত্ব নেওয়ার পর থেকে বিএসসিতে নতুন জাহাজ যুক্ত করার তোড়জোড় চলে। নতুন জাহাজ তৈরি এবং সরবরাহ করতে চুক্তি হয় চীনা প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে। প্রায় দেড় হাজার কোটি টাকার নতুন জাহাজ কেনার উদ্যোগ এখন আলোর মুখ দেখছে। চুক্তিবদ্ধ নতুন জাহাজগুলোর সরবরাহ একটির পর একটি পৌঁছতে শুরু করেছে বিএসসির কাছে। বিএসসির অপারেশনাল বিভাগ সূত্র জানায়, গেল ২৭ জুলাই চীনের ডকইয়ার্ড থেকে চট্টগ্রাম বন্দরে পৌঁছে নতুন জাহাজ এমভি জয়যাত্রা। জাহাজটি বহরে যুক্ত হওয়ার কয়েক দিনের মধ্যেই অপারেশনাল কাজে নিয়োজিত হয়। এখন নতুন এ জাহাজটি মধ্যপ্রাচ্যের একটি বন্দরে অপেক্ষা করছে পণ্যবোঝাই করতে। এরপর এটি চট্টগ্রাম বন্দরে পৌঁছার কথা রয়েছে। চীনে তৈরি আরেকটি নতুন জাহাজ চলতি মাসের শেষ নাগাদ চট্টগ্রাম বন্দরে পৌঁছার শিডিউল রয়েছে। এমভি সমৃদ্ধি নামে জাহাজটির নির্মাণ কাজ শেষ। এখন চীনা ডকইয়ার্ডে চলছে শেষ মুহূর্তের কাজ। বিএসসির এমডি কমোডর ইয়াহইয়া সৈয়দ জানান, নতুন যুক্ত হওয়ার অপেক্ষায় থাকা ছয়টি জাহাজের মধ্যে তিনটিই অয়েল ট্যাঙ্কার। সবগুলো জাহাজই সময়মতো বন্দরে পৌঁছবে।
শিপিং সেক্টরের দায়িত্বশীল এক কর্মকর্তা জানান, একটি জাহাজের প্রতিদিন ফিক্সড অপারেটিং কস্ট (এফওসি) বাবদ প্রচুর অর্থ গুণতে হয়। জ্বালানি তেল খাতে ব্যয়, ক্যাপ্টেন-ক্রুদের বেতনসহ নানা খাতে প্রতিদিন একটি জাহাজ খাতে ব্যয় প্রায় সাড়ে ৪ লাখ টাকা। মাস শেষে একটি মাত্র জাহাজের এফওসি খাতের ব্যয় কোটি টাকা ছাড়িয়ে যায়। তাই বিএসসির কোনো জাহাজ অলস বসে থাকলে এফওসি বাবদ প্রতিদিন লোকসান গুণতে হয় বিএসসির। এখন নতুন জাহাজ বহরে যুক্ত হওয়ার পরপরই অপারেশনাল কাজে যুক্ত করা হচ্ছে, যাতে জাহাজ অপারেশন খাতে কোনো ধরনের আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়তে না হয়।