আজকের পত্রিকাআপনি দেখছেন ২৮-০৯-২০১৮ তারিখে পত্রিকা

বেসরকারি টিভি চ্যানেল

প্রযোজকদের বকেয়া শতকোটি টাকা

নিজস্ব প্রতিবেদক
| নগর মহানগর
বেসরকারি টিভি চ্যানেলের কাছে প্রযোজকদের ১০০ কোটি টাকারও বেশি বকেয়া জমেছে- এ দাবি করেছে প্রযোজকদের সংগঠন টেলিভিশন প্রোগ্রাম প্রডিউসার অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (টেলিপ্যাব)। বকেয়া আদায়ের দাবিতে টেলিপ্যাব বৃহস্পতিবার ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে। এতে উপস্থিত ছিলেন টেলিপ্যাবের সভাপতি মামুনুর রশীদ ও সাধারণ সম্পাদক ইরশ যাকেরসহ পাওনাদার প্রযোজকরা। সংবাদ সম্মেলনে টিভি চ্যানেলগুলোকে প্রযোজকদের বকেয়া পরিশোধের আহ্বান জানিয়েছেন তারা। সংগঠনের সভাপতি মামুনুর রশীদ বলেন, এর আগেও চ্যানেলগুলোর কাছে বহু টাকা আটকা পড়েছিল। আমরা সেই টাকা অনেক কষ্ট করে আদায় করেছিলাম। এবারও প্রযোজকদের অনেক টাকা আটকে আছে। ১০০ কোটি টাকার মতো আটকে আছে। অনেক চেষ্টা করেও সেই টাকা যখন আমরা উদ্ধার করতে পারছিলাম না, তখন বিষয়গুলো জানাতে আপনাদের সামনে হাজির হয়েছি। এ ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রীর সহযোগিতা চেয়ে মামুনুর রশীদ বলেন, আমরা প্রধানমন্ত্রীর সহযোগিতা চাইছি। তার হস্তক্ষেপ কামনা করছি এই সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে। তিনি যেনো বিষয়টিকে গুরুত্বসহকারে বিবেচনা করেন। তাহলে হয়তো এ সমস্যার সমাধান হতে পারে। প্রযোজকদের লগ্নিকৃত টাকা ফেরত পাওয়া যেতে পারে। টাকা পাওয়া গেলে অনেক প্রযোজক বেঁচে যাবেন। শোবিজেও কাজের গতিশীলতা ফিরবে। টাকা বকেয়া আছে এমন প্রযোজকদের একজন জামাল উদ্দিন বললেন, একুশে টেলিভিশনের কাছে ৮৫ লাখ টাকা পাওনা আমার। সেই টাকাটা আদায় করতে পারছি না কিছুতেই। টেলিপ্যাবের সাধারণ সম্পাদক ইরেশ যাকের বলেন, আমরা সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে চ্যানেলগুলোতে জানাতে চেয়েছি, আমরা সিরিয়াস। আশা করি তারা আমাদের সঙ্গে বসার আগ্রহ দেখাবে। তারা যদি আমাদের কথা আমলে না নেন তাহলে নতুন কর্মসূচি দেওয়া হবে। আপনারা জানেন, মালিক পক্ষের কাছে এ টাকাটা কিছুই না। তারা ইচ্ছা করলেই এ টাকা পরিশোধ করে দিতে পারেন।