আজকের পত্রিকাআপনি দেখছেন ২৯-০৯-২০১৮ তারিখে পত্রিকা

কাদের বললেন

যারা ঢাকা দখল করতে চায় তাদের অচল করে দেব

নিজস্ব প্রতিবেদক
| প্রথম পাতা
বিএনপিকে উদ্দেশ করে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক, সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, আমরা একটা কথা পরিষ্কারভাবে জানিয়ে দিতে চাই, আমরা দখল-পাল্টা দখলে নেই। জনগণের সাড়া না পেয়ে আন্দোলনে ব্যর্থ হয়ে যারা ঢাকা দখলের হুমকি দিচ্ছেন, জনগণকে সঙ্গে নিয়ে আমরা তাদের অচল করে দেব। শুক্রবার রাজধানীর মতিঝিলের বাফুফে মাঠে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগের দোয়া মাহফিল, রক্তদান ও আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন। আওয়ামী লীগ সভানেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭২তম জন্মদিন উপলক্ষে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। ওবায়দুল কাদের বলেন, যারা আন্দোলনের হুমকি-ধমকি দিচ্ছেন, তাদের বলব, আপনারা আন্দোলন করে ঢাকা অচল করে দেবেন, আর আমরা ঘরে বসে বসে ডুগডুগি বাজাব? এটা হবে না। যুবলীগের নেতাকর্মীরা প্রস্তুত হয়ে যান, যারাই আন্দোলনের নামে নৈরাজ্য, সন্ত্রাস করার চেষ্টা করবে জনগণকে সঙ্গে নিয়ে তাদের আমরা অচল করে দেব। যুবলীগ, ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের প্রস্তুত থাকতে হবে, দেশের বিরুদ্ধে, সরকারের বিরুদ্ধে নানামুখী চক্রান্ত ষড়যন্ত্র চলছে। বিএনপি জনগণের সাড়া পায়নি। তাই নাশকতা-সহিংসতার পথে যাচ্ছে। ঢাকা দখল, দেশ দখলের হুমকি দিচ্ছে। পরিষ্কারভাবে বলতে চাই, আমরা দখল-পাল্টা দখলে নেই। কিন্তু সহিংসতা করলে ছাড় দেব না। আমরা পাড়া, মহল্লায় ঘরে ঘরে সাম্প্রদায়িক রাজনীতির বিরুদ্ধে জনগণকে সচেতন করব। সাম্প্রদায়িক রাজনীতির বিষবাষ্পকে ধূলিসাৎ করে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকাকে বিজয়ের বন্দরে নিয়ে যাব। ওবায়দুল কাদের অভিযোগ করেন, বিএনপি-জামায়াত অপশক্তির টার্গেট এখন আওয়ামী লীগ নয়। এখন তাদের টার্গেট বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তারা দেশের জনগণ দ্বারা প্রত্যাখ্যাত হয়ে দুবাই, লন্ডন, ব্যাংককে বৈঠক করছে, ষড়যন্ত্র করছে। তিনি বলেন, তাদের হুঁশিয়ার করে দিতে চাই, তারা যেন ভুলে না যায় যে, ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট আর আজকের ২০১৮ সাল এক নয়। ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট আর ২০১৮ সাল এক নয়। বাংলার ১৬ কোটি মানুষ শেখ হাসিনাকে ভালোবাসে। ১৬ কোটি মানুষের হৃদয়ের স্পন্দন শেখ হাসিনা। শেখ হাসিনার কিছু হলে সারা দেশে ঘরে ঘরে আগুন জ্বলবে। সেই আগুনে ষড়যন্ত্রকারীরা পুড়ে ছারখার হয়ে যাবে। আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, রাষ্ট্রনায়ক শেখ হাসিনার জন্মদিনকে জনগণের ক্ষমতায়ন দিবস হিসেবে পালনের দাবি করে আসছে যুবলীগ। আমি দলের সাধারণ সম্পাদক হিসেবে ঘোষণা দিচ্ছি, আগামী বছর থেকে প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিনকে ‘জনগণের ক্ষমতায়ন দিবস’ হিসেবে পালন করা হবে। ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগ সভাপতি ইসমাইল চৌধুরী স¤্রাটের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন, আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর কবির নানক, ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র মোহাম্মদ সাঈদ খোকন, যুবলীগ চেয়ারম্যান মোহাম্মদ ওমর ফারুক চৌধুরী, যুব ও ক্রীড়া উপমন্ত্রী আরিফ খান জয়, যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক হারুনুর রশিদ, যুবলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য শহীদ সেরনিয়াবাত, মজিবুর রহমান চৌধুরী, মাহবুবুর রহমান হিরণ প্রমুখ। সভা পরিচালনা করেন সংগঠনের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক রেজাউল করিম রেজা ও যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মমিনুল হক সাঈদ। প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন উপলক্ষে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগ সভাপতি ইসমাইল চৌধুরী স¤্রাট ২ লাখ মানুষের মধ্যে মিষ্টি বিতরণ করেন। এর আগে শেখ হাসিনার জন্মদিন উপলক্ষে ধানমন্ডি ৩২ নম্বরে আওয়ামী লীগের ত্রাণ উপকমিটির পক্ষ থেকে দুস্থ ও অসহায়দের মাঝে রিকশা ও ভ্যান বিতরণ করেন ওবায়দুল কাদের।