আজকের পত্রিকাআপনি দেখছেন ৩০-০৯-২০১৮ তারিখে পত্রিকা

পদ্মা সেতুর নাম হবে ‘শেখ হাসিনা পদ্মা সেতু’

মাওয়ায় ওবায়দুল কাদের

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি
| প্রথম পাতা

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, পদ্মা সেতুর নামকরণ করা হবে শেখ হাসিনা পদ্মা সেতু। শনিবার দুপুরে মুন্সীগঞ্জের মাওয়া প্রান্তে পদ্মা সেতু প্রকল্প এলাকা পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের তিনি একথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, পদ্মা সেতু প্রকল্পের ৫৯ এবং মূল সেতুর ৭০ ভাগ কাজ সম্পূর্ণ হয়েছে, আগামী ১৩ অক্টোবর ৬০ ভাগ কাজের উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। পদ্মা সেতুর নামকরণের বিষয়ে মন্ত্রণালয়ে লেখা হয়েছে এবং এ ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রীকে সামারি পাঠানো হয়েছে। তিনি বলেন, বিশ্বব্যাংক পদ্মা সেতু থেকে সরে যাওয়ার পর নিজস্ব অর্থায়নে সেতু 

নির্মাণের সাহস দেখান বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা। তার এ সাহসকে সম্মান জানাই, তার একক সাহসের সোনালি ফসল পদ্মা সেতু আজ দৃশ্যমান। পদ্মা সেতুর নামকরণের বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী ও বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ রেহেনা বারবার বলেছেন, পদ্মা নদীর নামেই সেতুর নাম হবে। সেতুর নামকরণের বিষয়ে বিভিন্ন সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠন থেকে বহু চিঠিপত্র আসে, সবার অভিমত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নামে নামকরণ হোক। এ জনমতের চাপ প্রতিনিয়ত অনুভব করছি। এ সময় উপস্থিত ছিলেন প্রকল্প পরিচালক শফিকুল ইসলাম, নির্বাহী প্রকৌশলী দেওয়ান মোহাম্মদ আবদুল কাদের, শ্রীনগর সার্কেল এসপি কাজী মাকসুদা লিমা প্রমুখ।
পদ্মা সেতুর বিশেষজ্ঞ সভা আজ : পদ্মা সেতুর বিশেষজ্ঞ সভা বসছে আজ রোববার। এ সভা হচ্ছে প্রকল্প এলাকার জাজিরা সার্ভিস এরিয়ায়। এতে পদ্মা সেতুর বিশেষজ্ঞ প্যানেলের প্রধান অধ্যাপক ড. জামিলুর রেজা চৌধুরীর নেত্বত্বে পাঁচ বিদেশি বিশেষজ্ঞসহ পুরো দলটির অংশ নেওয়ার কথা রয়েছে। সভায় সেতুর চলমান কাজের অগ্রগতি, সফলতা এবং চ্যালেঞ্জগুলো সফলভাবে এগিয়ে নেওয়া এবং কাজের সঠিক মান নিয়েও আলোচনার কথা রয়েছে। তলদেশে নরম মাটি চ্যালেঞ্জটির বিষয়ে যে নকশা হয়েছে, তার সফল বাস্তবায়ন এবং নকশা অনুযায়ী পাইলের খাঁজকাটা (ট্যাম) টিউব তৈরির কাজ সরেজমিন পরিদর্শন করবেন বলে জানা গেছে। নানা কারণেই প্যানেল অব এক্সপার্টদের এ সভা গুরুত্বপূর্ণ। তিন দিনের এ সভাটি শেষ হওয়ার কথা রয়েছে ২ অক্টোবর। বিশেষজ্ঞ প্যানেলের নবম সভা এটি। বিশেষজ্ঞ প্যানেল এ সভার নাম দিয়েছে মাইলস্টোন মিটিং। এদিকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ১৩ অক্টোবর মাওয়ায় আসছেন। ৬০ ভাগ কাজের উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এ আগমন ঘিরে এখানে উৎসবের আমেজ বিরাজ করছে।