আজকের পত্রিকাআপনি দেখছেন ১২-০৭-২০১৯ তারিখে পত্রিকা

বিয়ে করলেন ইশানা খান

বিনোদন প্রতিবেদক
| বিনোদন

বিয়ে করলেন এ সময়ের ছোটপর্দার প্রিয় মুখ ইশানা খান। পাত্র অস্ট্রেলিয়া প্রবাসী সারিফ চৌধুরী। সারিফ চৌধুরী ২০১৫ সাল থেকে অস্ট্রেলিয়ার ব্রডব্যান্ড নেটওয়ার্কের (এনবিএন) নেটওয়ার্ক ইঞ্জিনিয়ার হিসেবে কাজ করছেন। সারিফ চৌধুরী আবু সোলায়মান চৌধুরী ও নাইয়ার সুলতানার দ্বিতীয় সন্তান। তার বাবা মন্ত্রিপরিষদ সচিব ছিলেন। কিছুদিন আগেই তিনি দেশে আসেন। যদিওবা সারিফ ও ইশানার আগে থেকেই পরিচয় ছিল; তারপরও দুই পরিবারের আয়োজনের মধ্য দিয়েই ইশানা ও সারিফের বিয়ের আনুষ্ঠানকিতা আপাতত ছোট্ট পরিসরেই সমাপ্ত হলো। ১০ জুলাই বাদ আসর গুলশান আজাদ মসজিদে দুই পরিবারের সদস্যদের উপস্থিতিতে সারিফ ও ইশানার আকদ সম্পন্ন হয়। পরে রাতে রাজধানীর বনানী ক্লাবে ঘরোয়া আয়োজনের মধ্য দিয়ে বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন হয়। ইশানা জানান, কয়েক মাস পর বড় পরিসরে তাদের বিবাহোত্তর সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত হবে। মেজ মেয়ে ইশানার সারিফের সঙ্গে বিয়ে হওয়ায় বাবা মাহবুব আলম খান ও মা নীলিমা ইসলামও বেশ খুশি। ইশানার বড় বোন শাওন আমেরিকায় নেভিতে চাকরিরত। তার ছোট বোন ইয়ারাও মাঝেমধ্যে অভিনয় করেন। হঠাৎ বিয়ে হওয়া প্রসঙ্গে ইশানা বলেন, ‘যেহেতু অনেকটা হঠাৎ করেই এই বিয়ে হওয়া, তাই বিয়েকে ঘিরে অনেক ব্যস্ততা ছিল আমার। তারপরও আলহামদুলিল্লাহ বেশ ভালোভাবে বিয়ে সম্পন্ন হয়েছে। আমার খুব কাছের আত্মীয়স্বজন, বন্ধু-বান্ধব উপস্থিত ছিলেন। সবাই আমাদের দোয়া করে গেছেন, এটাও আসলে অনেক বড় প্রাপ্তি। খুব সুন্দর মনের মানুষ সারিফকে আমি আমার জীবনে পেয়ে আমি খুব সুখী। সত্যিই আমি খুব ভালো আছি। আল্লাহ যেন আমাদের সারা জীবন একসঙ্গে ভালোভাবে থাকার তৌফিক দান করেন এ দোয়াই চাই সবার কাছে।’ সারিফ বলেন, ‘ইশানাকে আমার জীবনে পেয়ে আমি খুব খুশি, আলহামদুলিল্লাহ। সত্যি বলতে কী, সবার দোয়া ছিল বলেই এত সুন্দরভাবে অল্প সময়ের মধ্যে সবকিছু সম্পন্ন হলো। আল্লাহর কাছে অসীম কৃতজ্ঞতা।’ সারিফ জানান, আগামীকাল রাতের ফ্লাইটে ইশানাকে নিয়ে অস্ট্রেলিয়ার সিডনির উদ্দেশে উড়াল দেবেন। সারিফ চৌধুরী ২০০৫ সাল থেকে মিডিয়ায় নিয়মিত কাজ করতেন। তার শুরুটা উপস্থাপনা দিয়ে। তার উপস্থাপনায় চ্যানেল ওয়ানে প্রচারিত ‘রূপান্তরের গল্প’ ও ‘মিউজিক ওয়াগন’ বেশ জনপ্রিয়তা পেয়েছিল। ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর হিসেবে তিনি কাজ করেছেন ‘একমি প্রিমিয়াম টি’, ‘পেপসোডেন্ট হারবাল’, ‘প্রাণ চাটনি’ ও ‘ওয়ারিদ টেলিকম’-এর। ২০০৯ সাল পর্যন্ত তিনি মিডিয়ায় কাজ করা নিয়েই ব্যস্ত ছিলেন। তপু খানের নির্দেশনায় আরটিভিতে প্রচার চলতি ‘সময়ের গল্প’তে সারিফ ও ইশানা প্রথম নাটকে অভিনয় করেন এপ্রিলে। এদিকে বিয়ের আগে ইশানা খান মোশাররফ করিমের বিপরীতে মারুফ মিঠুর নির্দেশনায় ‘সেইরকম বাকি খোর’ নাটকে অভিনয় করেন, যা আসছে ঈদে একটি স্যাটেলাইট চ্যানেলে প্রচার হবে।