আজকের পত্রিকাআপনি দেখছেন ১২-০৭-২০১৯ তারিখে পত্রিকা

সংসদে রওশন এরশাদ

আমরা উন্নয়ন চাই কিন্তু গ্যাসের দাম বাড়াতে চাই না

সংসদ প্রতিবেদক
| শেষ পাতা

গ্যাসের দাম হঠাৎ করে বাড়ানোয় সংসদে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন বিরোধীদলীয় উপনেতা ও জাতীয় পার্টির সিনিয়র কো-চেয়ারম্যান বেগম রওশন এরশাদ। তিনি বলেন, হঠাৎ করে গ্যাসের দাম কেন বাড়ানো হলো। আমি শুনেছি, প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, উন্নয়ন চাইলে গ্যাসের দাম বাড়বে। আমরা উন্নয়ন চাই; কিন্তু গ্যাসের দাম বাড়াতে চাই না। এটি আমার কথা নয়, জনগণের কথা। তিনি বলেন, যেদিন বাজেট পাস হলো সেদিন গ্যাসের দাম বাড়ানো হলো। গণশুনানির পর দেখা গেল গ্যাসের দাম বেড়ে গেছে। আমরা যখন গ্যাসের দাম বাড়িয়ে দিলাম, তখন ভারতে গ্যাসের দাম কমিয়ে দিল। ঘরে রান্নার গ্যাসের দাম ১০০ টাকা কমিয়ে দিল। বৃহস্পতিবার সংসদের বাজেট অধিবেশনের সমাপনী বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

রওশন এরশাদ বলেন, আমাদের তো প্রাকৃতিক গ্যাস আছে। সেগুলো উত্তোলনের ব্যবস্থা আমরা করতে পারি। হয়তো ২-৩ বছর লেগে যাবে। আমাদের গ্যাসের দাম না বাড়িয়ে যদি কোনো কিছু করা যায়। জনগণকে একটু রেহাই দিন। অনেক মানুষ আছে যাদের এত দাম দিয়ে গ্যাস কেনার সামর্থ্য নেই। জনগণকে একটু রেহাই দেওয়া উচিত। শিশু নির্যাতন নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে নির্যাতনকারীদের সর্বোচ্চ শাস্তির দাবি জানান তিনি।

অসহায় শিক্ষকদের প্রতি মানবিকতার হাত বাড়ানোর জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি অনুরোধ জানিয়েছে রওশন এরশাদ বলেন, এমপিওভুক্তি বঞ্চিত শিক্ষকরা আন্দোলন করছেন, তারা বেতন পাচ্ছেন না। এ অসহায় শিক্ষকদের প্রতি মানবিকতার হাত বাড়ানোর জন্য প্রধানমন্ত্রীর প্রতি অনুরোধ জানাই।
রওশন বলেন, ছোট ছোট বাচ্চাদের ধর্ষণ করা হচ্ছে। বিভিন্নভাবে নির্যাতন করা হচ্ছে। এ ধরনের শিশু নির্যাতন কেন গড়ে উঠেছে? বিশেষ করে স্কুল-মাদ্রাসায় কোনো জায়গায় আমাদের বাচ্চারা সুরক্ষিত নয়, নিরাপদ নয়। যদি নিরাপদ না হয় তাহলে লেখাপড়া করবে কীভাবে? নুসরাতের মতো যদি জীবন দিতে হয় এটি দুঃখজনক। আমাদের দেশে আইন আছে। আমি সরাসরি বলতে চাই, এদের মৃত্যুদ- দিতে হবে।
তিনি বলেন, দেশের উন্নয়নের সঙ্গে দিনরাত পরিশ্রম করে তথ্য সরবরাহ করেন গণমাধ্যম কর্মীরা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছেন। গণমাধ্যমে কর্মরত সাংবাদিকদের উন্নয়নে কোনো সরকার গুরুত্ব দেয় না। যদিও বর্তমান সরকারের সময় গণমাধ্যম কর্মীদের জন্য নবম ওয়েজ বোর্ড গঠন করা হয়েছে। প্রধানমন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষণ করছি, সাংবাদিকদের ওয়েজ বোর্ড দ্রুত বাস্তবায়নে গুরুত্ব দেবেন। ওয়েজ বোর্ড যেন সাংবাদিকরা পায় সেটি বাস্তবায়নে তথ্যমন্ত্রী গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করার অনুরোধ করেন। 
গ্যাস নিয়ে আলোচনা না হওয়ায় ক্ষোভ : গ্যাসের মূল্যবৃদ্ধি নিয়ে সংসদে আলোচনা না হওয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি ও সাবেক মন্ত্রী রাশেদ খান মেনন। তিনি বলেছেন, আমরা বকাউল্লা, আর উনারা শুনা উল্লা, আর এ সংসদ হচ্ছে গরিবুল্লা। এ নোটিশ যদি আলোচনা না হয় সংসদ আরও গরিবুল্লা হবে বলে আমার ধারণা। বৃহস্পতিবার সংসদ অধিবেশনে পয়েন্ট অব অর্ডারে দাঁড়িয়ে একথা বলেন তিনি। এ সময় ডেপুটি স্পিকার বলেন, বিষয়টি স্পিকারের বিচেনাধীন রয়েছে। আলোচনা হয়নি বলে যে হবে না তা কিন্তু নয়। রাশেদ খান মেনন বলেন, আমি এর আগে গ্যাসের দাম বৃদ্ধির প্রতিবাদে সংসদে ৬৮ বিধিতে একটি নোটিশ দিয়েছিলাম। সেদিন আপনি (ডেপুটি স্পিকার) বলেছিলেন নোটিশটি স্পিকারের বিবেচনাধীন রয়েছে।