আজকের পত্রিকাআপনি দেখছেন ১২-০৯-২০১৯ তারিখে পত্রিকা

৬৯৯ ডলারে আইফোন ১১!

আলোকিত ডেস্ক
| শেষ পাতা

যেখানে ফোল্ডএবল ফিচার এনে স্যামসাং মোবাইল ফোনের দাম নিয়ে গেছে প্রায় দুই হাজার ডলারে, সেখানে স্রেফ ৬৯৯ ডলার থেকে নতুন প্রিমিয়াম ফোনের দাম ঠিক করল অ্যাপল। 
ক্যালিফোর্নিয়ার কুপারটিনোতে নিজেদের প্রধান কার্যালয়ে আয়োজিত অনুষ্ঠানটি অনলাইনে স্ট্রিম করে অ্যাপল। এ প্রথমবার ইউটিউবেও অনুষ্ঠানটি সরাসরি দেখতে পান আগ্রহীরা। কিছুদিন ধরেই স্মার্টফোনের বাজারে নিয়ামক ফিচার হয়ে দাঁড়িয়েছে একাধিক ক্যামেরার সমম্বয় এবং ভাঁজ করা যায় এমন পর্দা। নতুন আইফোনেও দুটি মডেলে দেখা যাচ্ছে তিনটি ক্যামেরার ফিচার যোগ হয়েছে। তবে অ্যাপল সম্ভবত বাজির ঘোড়া হিসেবে পর্দার মাপে নজর না দিয়ে ফোনের দামে চমক দেখালো।
নতুন তিনটি মডেলের আইফোনের দাম ফিচারভেদে ১ হাজার ৯৯ ডলার পর্যন্ত গেছে বটে, কিন্তু কেউই সম্ভবত কল্পনা করেননি ৭০০ ডলারের মধ্যেই নতুন আইফোনের অন্তত একটি মডেলের দাম রাখা হবে। নতুন তিনটি মডেলের একটিকে বলা হচ্ছে আইফোন ১১ প্রো ম্যাক্স, আইফোন ১১ প্রো এবং আইফোন ১১। আগের বছরগুলোতে সাধারণত অ্যাপল বড় পর্দার মডেলগুলোর বেলায় ‘প্লাস’ কথাটি যোগ করত। নতুন মডেলগুলোয় আইফোন ১১ প্রো এবং আইফোন প্রো ম্যাক্সের পর্দার মাপ যথাক্রমে ৫.৮ এবং ৬.৫ ইঞ্চি। অপরদিকে আইফোন ১১-এর পর্দার মাপ ৬.১ ইঞ্চি। নতুন ডুয়াল ক্যামেরা ব্যবস্থা রাখা হয়েছে আইফোন ১১ তে। অনুষ্ঠানে এ ক্যামেরার কিছু দারুণ আলট্রা ওয়াইড ছবি দেখানো হয়। ক্যামেরা ছাড়াও আইফোন ১১-এ যোগ করা হয়েছে এ১৩ বায়োনিক চিপ। আইফোন ১১-এর পর আরও দুটি নতুন আইফোনের ঘোষণা এসেছে এবারের ইভেন্টে। পেছনে তিন ক্যামেরা ব্যবস্থার আইফোন ১১ প্রো এবং আইফোন ১১ প্রো ম্যাক্সের ঘোষণা দেয় প্রতিষ্ঠানটি। অ্যাপলের দাবি স্মার্টফোনে সর্বোচ্চ মানের ভিডিও পাওয়া যাবে নতুন আইফোন ১১ প্রো ডিভাইসে। ডিভাইসগুলোতে আগের চেয়ে উন্নত পর্দাও রেখেছে অ্যাপল। 
সূত্র : ওয়েবসাইট।