আজকের পত্রিকাআপনি দেখছেন ১৯-০৯-২০১৯ তারিখে পত্রিকা

ইসলামপুরে ২ বছরেও সংস্কার হয়নি আদর্শগ্রামের ২০ ঘর

ইসলামপুর (জামালপুর) প্রতিনিধি
| দেশ

পর পর দুইবারে আগুন লেগে পুড়ে গেছে জামালপুরের ইসলামপুর উপজেলার চরপুটিমারী ইউনিয়নের কান্দারচর আদর্শ গ্রামের ২০ পরিবারের ২০টি ঘর। এর ২ বছর অতিক্রান্ত হলেও আজও ঘরগুলোর সংস্কার বা মেরামতের উদ্যোগ কোনো নেওয়া হয়নি। আগুনে সর্বহারা আশ্রিতদের একমাত্র আশ্রয়স্থলটুকু বসবাসের অনুপযোগী হয়ে পড়ায় আজ আবারও তারা ভাসমান। জানা যায়, ২০১৮ সালের মার্চ মাসের দিকে বিদ্যুতের আগুনে পুড়ে যায় কান্দারচর আদর্শ গ্রামের ১০টি ঘর। এর আগের বছর একই কারণে আরও ১০টি ঘর পুড়ে। ঘর ছাড়াও আগুনে পুড়ে যায় আশ্রিতদের আসবাবপত্র, নগদ টাকা ও গবাদিপশু। অপেক্ষায় থাকে জনপ্রতিনিধি ও স্থানীয় প্রশাসনের সাহায্যের। কিন্তু দিন গিয়ে মাস গড়ালেও তাদের সাহায্যের দেখা মিলে না। কেউ আর পাশে দাঁড়ায়নি এ ভাগ্যহত মানুষগুলোর। এমন তথ্যের ভিত্তিতে মঙ্গলবার, চরপুটিমারি ইউনিয়নের কান্দারচর আদর্শ গ্রাম গিয়ে জানা যায়, আগুনে পোড়া ঘরগুলো আর মেরামত করতে না পারায়, পাষাণ মোল্লা, আজাহার মোল্লা, ঈমান আলী, আমির হামযা ও বাচ্চু মিয়াসহ অনেকে ঢাকাসহ বিভিন্ন জায়গায় ভাসমান জীবনযাপন করছেন। যাওয়ার জায়গা নেই বলে পোড়া ঘরেই বসবাস করছেন দোলোয়ার, ফিরোজ ও ফরিদারা। এ ব্যাপারে আগুনে সর্বহারা দেলোয়ার বলেন, আগুনে পোড়ার পর অন্তত ঘরের চালটি ঠিক করার জন্য কিছু টিন চেয়ে স্থানীয় প্রতিনিধিসহ প্রশাসনের দ্বারে দ্বারে ঘুরেছি। কেউ এ মানুষগুলোর কথা ভাবেনি। অগত্যা আমরা কয়েকজন ভাঙা ঘরেই বসবাস করছি। এ ব্যাপারে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মেহেদী হাসান টিটু জানান, ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের তালিকা জেলাতে পাঠিয়েছি বরাদ্দ পেলে তাদের ব্যবস্থা নেওয়া হবে। ইসলামপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মিজানুর রহমান বলেন, বিষয়টি আমার জানা ছিল না, জানলাম। আমি কিছু করার চেষ্টা করব, বলেও জানান তিনি।