কতিপয় বিচ্ছিন্ন মুহূর্তের টীকা

 

১.
নিরন্তর শুষ্কতার বশে আমি এক মরুকাঠ; অথচ ঠান্ডাজলপূর্ণ কিছু পানপাত্র 
এমন অনুকূল জলাধার ভেবে বারবার আমাকেই পান করতে চায় কেন!
২.
ব্যথা ও বাসনার বশে অবিরাম ডানা-ঝাপটাই
আমি এক হৃদয়ের রোগী...
৩.
মন যা ভাবে, মুখে তা বলতে পারি না লাজেÑ
যায় না সেসব লেখা । 
ফলে না তো সবকিছু কাজেÑ
যা কিছু চাইছে হৃদয় নিরবধি...      
৪.
জীবন সমরে ঝড় আসে অগ্নিজ্বালা
কেউ মেঘ রঙধনু কেউ হানে শিলা!
৫.
রমনাপার্কে বৃক্ষদের অবিশ্রাম পাতাঝরা দেখে ভাবনাকুল একদল পরী।
ইস্, ওরা যদি অমৌসুম হতো, অকাল ঋতুর দোষে ফুরাতো না শ্যামল সুরভী, অনাহূত শীত এসে নষ্ট হলো কুঞ্জ-কানন!
কেনো ভাঙে পুষ্পসাজ; কেন এই পাতার রোদন!
প্রেমিকের বাহুডোর থেকে ভাবে ওরা ব্যথাতুর মনে: উত্তরের ঊষর প্রান্ত হতে চুপেচুপে আমি আজ শোনেছি সেসব।


দারুণ এক গোয়েন্দা কাহিনি
দারুণ এক গোয়েন্দা কাহিনি বের হয়েছে গোয়েন্দা কাহিনি ‘আলিম বেগের খুলি’।
বিস্তারিত
কবর
  আমাকে আমার মায়ের পাশে দিও কবর দুগ্ধপান শেষে শিশু ঘুমায়
বিস্তারিত
টিপু সুলতানের গুচ্ছ কবিতা
চোখ দুটো স্ববাক আমার হাতকড়া খুলে দাও। মগজের ভেতর দেশপ্রেম উত্তালতার ছায়া
বিস্তারিত
চিঠি
চিঠি ফারজানা আলম যুথিকা   লাল নীল খামে ভরে এক দুই তিন প্রিয় তুমি
বিস্তারিত
বুশকে
বুশ ঢাকা থেকে মেরী অ্যান পিটার্স  আমার এই পঙ্ক্তিমালা অনুবাদ করে 
বিস্তারিত
যে-পারে পারুক, আমি পারবো না
যে-পারে পারুক, আমি পারবো না মেনে নিতে। এই রইলো রক্তমাখা রাজার
বিস্তারিত