করোনা ভাইরাসের প্রভাবে দক্ষিণ কোরিয়ায় স্যামসাংয়ের কারখানা বন্ধ

করোনা ভাইরাসের প্রভাবে সবচেয়ে কম ক্ষতি হয়েছে স্যামসাংয়ের। কারণ আগেই চীনের বেশিরভাগ কারখানা বন্ধ করে সেগুলো ভিয়েতনামে সরিয়ে নিয়েছে তারা। তবে শেষ রক্ষা হলো না। স্যামসাং ইলেকট্রনিকস জানিয়েছে, দক্ষিণ কোরিয়ার গুমি শহরের মোবাইল কারখানাটিতে এক কর্মীর শরীরে করোনা ভাইরাস ধরা পড়ে। ফলে পুরো কারখানা তারা বন্ধ করতে বাধ্য হয়। কোভিড-১৯ আক্রান্ত ওই ব্যক্তির সংস্পর্শে যারা এসেছেন তাদের কোয়ারেন্টাইন করে রেখেছে স্যামসাং। এছাড়া, ওই কর্মীদের শরীরে ভাইরাসটি ঢুকেছে কিনা তা পরীক্ষা করার ব্যবস্থা নিয়েছে স্যামসাং।
গুমি শহরের ওই কারখানাতে শুধু হাই অ্যান্ড ফোন তৈরি করা হয়। এ  ফোন শুধু দক্ষিণ কোরিয়াতেই বিক্রি করে স্যামসাং। তাদের সিংহভাগ ফোন উৎপাদন হয় ভিয়েতনাম ও ভারতে। দক্ষিণ কোরিয়ার থেগু শহরে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক মানুষ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। সেখান থেকে গুমি শহরের অবস্থান খুব বেশি দূরে নয়। এখন পর্যন্ত দেশটিতে আক্রান্তের সংখ্যা ৬০২ জন। মারা গেছেন ৫ জন। এখন পর্যন্ত করোনা ভাইরাসে মোট আক্রান্ত হয়েছেন ৭৮ হাজার ৮৫৯ জন। মৃত্যু হয়েছে ২ হাজার ৪৬৩ জনের।


ডিজিটাল রূপান্তরকে গতিশীল করতে আরও
ডিজিটাল বাংলাদেশের রূপান্তরকে গতিশীল করার পথে প্রতিশ্রুতি ও প্রচেষ্টা বাড়িয়েছে
বিস্তারিত
১৩ লাখ ডেভেলপার নিয়ে এগিয়ে
বিশ্বব্যাপী নিরাপদ ও সুরক্ষিত ইকোসিস্টেম গড়ে তুলতে অব্যাহতভাবে কাজ করে
বিস্তারিত
৬ প্রাইভেসি চেক করতে পারবেন
ব্যবহারকারীদের হাতে তাদের তথ্যের বাড়তি নিয়ন্ত্রণ তুলে দিতে প্রাইভেসি চেকআপ
বিস্তারিত
বাংলাদেশে রিয়েলমির অফিসিয়াল যাত্রা শুরু
স্মার্টফোন ব্র্যান্ড রিয়েলমি ২৪ ফেব্রুয়ারি বাংলাদেশে যাত্রা শুরু করছে প্রেস
বিস্তারিত
টিএসএ কর্মীদের টিকটক ব্যবহারে নিষেধাজ্ঞা
যুক্তরাষ্ট্রের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অধীনস্থ সংস্থা ‘ট্রান্সপোর্টেশন সিকিউরিটি অ্যাডমিনিস্ট্রেশন’ (টিএসএ)-এর কর্মীরা
বিস্তারিত
ছোট অ্যাপে একসঙ্গে ওয়ার্ড, এক্সেল
অপেক্ষাকৃত কম ক্ষমতাসম্পন্ন স্মার্টফোনের জন্য মাইক্রোসফট নিয়ে এসেছে ‘মাইক্রোসফট অফিস’
বিস্তারিত