ঢাকা ১৫ জুলাই ২০২৪, ৩১ আষাঢ় ১৪৩১ | বেটা ভার্সন

নাটকে অভিনয়ে অনবদ্য কেয়া পায়েল

নাটকে অভিনয়ে অনবদ্য কেয়া পায়েল

এই প্রজন্মের দর্শকপ্রিয় আলোচিত অভিনেত্রী কেয়া পায়েল। গেল রোজার ঈদেও তার অভিনীত বেশ কয়েকটি নাটক দর্শকপ্রিয়তা পেয়েছে। যথারীতি গত কোরবানির ঈদেও তার অভিনীত কয়েকটি নাটক দর্শকের কাছে দারুণভাবে সমাদৃত হয়েছে। বিশেষত জাকারিয়া শৌখিন পরিচালিক ‘রূপকথা, পথিক সাধন পরিচালিত ‘মনেরেখো আমায়’, মহিদুল মহিমের ‘মনের আকাশে তুমি’ ও তুহিন হোসেনের ‘মিলন মালা’ নাটকে তার অনবদ্য অভিনয় দর্শককে মুগ্ধ করেছে। চারটি নাটকে তার বিপরীতে যথাক্রমে অভিনয় করেছেন তৌষিপ মাহবুব, ইয়াশ রোহান, ইরফান সাজ্জাদ ও জোভান। তৌসিফের বিপরীতে আরো একটি নাটক ‘দ্বিধা’ শিগগিরই প্রকাশ পাবে। এটি পরিচালনা করেছেন মুহিদুল মহিম। কেয়া পায়েল বলেন, ‘চেষ্টা করি সবসময় ভালো ভালো গল্পের নাটকে অভিনয় করতে। পরিচালকদের প্রতি আন্তরিক কৃতজ্ঞতা যে তারা আমাকে আমারই মনেরমতো গল্পের নাটকে কাজ করার সুযোগ করে দেন। উল্লেখিত চারটি নাটকে আমার অভিনীত চরিত্রে যথেষ্ট ভিন্নতা রয়েছে। যে কারণে প্রত্যেকটি নাটকের জন্য বেশ ভালো রেসপন্স পাচ্ছি। সেটা রূপকথাই হোক বা মনেরেখো আমায় হোক বা মনের আকাশে তুমি হোক কিংবা মিলনমালা হোক। নাটকে যারা সহশিল্পী হিসেবে আছেন প্রত্যেকেই ভীষণ সহযোগিতাপরায়ন। সহশিল্পীরাও আমার অভিনয় ভালো করার ক্ষেত্রে চরিত্র যথাযথভাবে ফুটিয়ে তুলতে ভীষণ ভূমিকা রাখে। তাই তাদের প্রতিও আমি আন্তরিকভাবে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি। অবশ্যই দর্শকের প্রতিও কৃতজ্ঞতা রইল। কারণ তাদের কারণেই কষ্ট করা, ভালো গল্পে কাজ করা। দর্শকের ভালোবাসায় প্রতিনিয়তই ভালো ভালো কাজ করার জন্য অনুপ্রাণিত হই।’ অনেকেই এখন সিনেমাতে অভিনয়ে মনোযোগী হয়ে উঠছেন কেয়া পায়েল বলেন, ‘আমি সিনেমাতে অভিনয়ের জন্য এখনো পুরোপুরি প্রস্তুত নই। আগে একটি সিনেমাতে কাজ করেছিলাম। পরবর্তীতে ভাবলাম যে সিনেমা বা বড় পর্দায় অভিনয় করার জন্য নিজেকে যথাযথভাবে আমার প্রস্তুত করেই আসতে হবে।’ কেয়া পায়েল জয়নাল আবেদীন পরিচালিত ‘ইন্দুবালা’ সিনেমাতে অভিনয় করেছিলেন। এতে তার বিপরীতে ছিলেন আশিক চৌধুরী।

আরও পড়ুন -
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত