ঢাকা ২৩ জুলাই ২০২৪, ৮ শ্রাবণ ১৪৩১ | বেটা ভার্সন

ন্যায়বিচার পেতে আন্দোলনকারীদের যে পরামর্শ দিলেন আইনমন্ত্রী

ন্যায়বিচার পেতে আন্দোলনকারীদের যে পরামর্শ দিলেন আইনমন্ত্রী

সরকারি চাকরিতে কোটা ব্যবস্থা বাতিলের দাবিতে দেশব্যাপী আন্দোলনরত চাকরি প্রত্যাশী ও শিক্ষার্থীদের রাস্তায় আন্দোলন করা উচিত নয় বলে মন্তব্য করেছেন আইনমন্ত্রী আনিসুল হক। পাশাপাশি তিনি এও বলেন, আন্দোলনকারীরা একজন আইনজীবী রেখে আদালতে তাদের বক্তব্য উপস্থাপন করলে নিশ্চই আদালত তাদের ন্যায্য রায় দেবেন। গতকাল সোমবার দুপুরে রাজধানীর ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার রাজনৈতিক কার্যালয়ে দলের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরসহ পাঁচজন মন্ত্রী রুদ্ধদ্বার বৈঠক করেন। ওই বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন আইনমন্ত্রী আনিসুল হক। এছাড়া বাকিরা হলেন, শিক্ষামন্ত্রী ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল, তথ্যপ্রতিমন্ত্রী মোহাম্মাদ আরাফাত ও শিক্ষাপ্রতিমন্ত্রী বেগম শামসুন্নাহার চাঁপা। বৈঠকের বিষয়ে জানতে চাইলে আইনমন্ত্রী বলেন, আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদকসহ পাঁচজন মন্ত্রী বসেছিলাম। কোটাসহ বিভিন্ন বিষয় নিয়ে নিশ্চয়ই আলাপ হয়েছে। কোটা একটা বার্নিং ইস্যু। পার্টির সেক্রেটারি ওবায়দুল কাদের এ বিষয়ে বলেছেন। তিনি বলেন, আমার বক্তব্যে হচ্ছে ‘আমি খোঁজ নিয়ে দেখেছি, হাইকোর্টে এই মামলার শুনানির সময় তখন কিন্তু কোটার বিপক্ষে যারা তাদের কোনো আইনজীবী ছিলেন না। তারা আদালতে তাদের বক্তব্য তুলে ধরেননি। এখন মামলাটা আপিল বিভাগে গেছে, আমার বিশ্বাস আপিল বিভাগে তারা একজন আইনজীবী রেখে তাদের বক্তব্য যদি উপস্থাপন করেন, আমি দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করি যে, আপিল বিভাগ একটা ন্যায্য রায় দেবেন। তিনি আরও বলেন, ‘আমার মনে হয়, যারা এই আন্দোলন করছেন এটা কোনো রাজনৈতিক বিষয় নয়, বিষয়টা আদালতের। অবরোধ করে বক্তব্য দিয়ে বা চিৎকার করে কোনো লাভ নেই। বক্তব্য দিতে হবে আদালতে গিয়ে। আমার মনে হয়, আদালতে যদি এটা উপস্থাপন করা হয়, তাহলে নিশ্চয়ই একটা যৌক্তিক রায় পাবেন। সবশেষে আবারো বলবো তাদের বক্তব্য আদালতে উপস্থাপন করুক।’

আরও পড়ুন -
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত