ঢাকা ১৩ জুলাই ২০২৪, ২৯ আষাঢ় ১৪৩১ | বেটা ভার্সন

চলে গেলেন আরেক নারী ফুটবলার

চলে গেলেন আরেক নারী ফুটবলার

চলতি বছরের মার্চে প্রসবকালীন জটিলতায় না ফেরার দেশে পাড়ি জমিয়েছেন নারী ফুটবলার রাজিয়া খাতুন। তিন মাসের ব্যবধানে প্রাণ হারালেন আরেক নারী ফুটবলার মিথিলা আক্তার। দীর্ঘদিন ধরে লিভার ও শ্বাসকষ্টের জটিলতায় ভুগছিলেন এই কিশোরী। তিনি বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৪ ও অনূর্ধ্ব-১৬ নারী ফুটবল দলের খেলোয়াড় ছিলেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ২৩ বছর। গতকাল সোমবার বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে) এক বিবৃতিতে মিথিলার মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেছে। বিবৃতিতে বাফুফে জানায়, দীর্ঘদিন ধরে লিভার ও শ্বাসকষ্ট জটিলতায় ভুগছিলেন মিথিলা। গত রোববার রাতে তার মৃত্যু হয়। এ নারী ফুটবলারের মৃত্যুতে বাফুফে সভাপতি কাজী মো. সালাহউদ্দিনসহ অন্যান্য কর্মকর্তারা শোক প্রকাশ করেছেন। গভীর সমবেদনা জানিয়েছেন তার পরিবারের প্রতি। মিথিলা বাফুফের নিয়মিত নারী ক্যাম্পের খেলোয়াড় ছিলেন না। বাফুফের তথ্য মতে, মিথিলা বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৪ ও ১৬ দলে খেলেছেন। বয়সভিত্তিক দুই দলে খেললেও বাফুফের কাছে সুনির্দিষ্ট তথ্য নেই কোন কোন টুর্নামেন্টে অংশ নিয়েছিলেন মিথিলা। এর আগে মারা যাওয়া আরেক ফুটবলার রাজিয়া বাংলাদেশ সাফ অনূর্ধ্ব-১৮ চ্যাম্পিয়ন দলের সদস্য ছিলেন। বাফুফের ক্যাম্পেও ছিলেন তিনি। পারফরম্যান্স অবনতি হওয়ায় পরে ক্যাম্প থেকে বাদ পড়েন। তবে এরপর নারী লিগে খেলেছেন। সম্প্রতি প্রসব জটিলতায় এই নারী ফুটবলারের জীবন অবসান হয়। খোঁজ নিয়ে জানা গেছে বাফুফের আবাসিক ক্যাম্পের বাইরে নারী ফুটবলাররা সুযোগ-সুবিধা খুব বেশি পান না। নানা কষ্টে দিন কাটে তাদের। রোগ জটিলতায় দুনিয়াও ত্যাগ করছেন অনেকে। আর্থিক ও নানা সীমাবদ্ধতায় বাফুফে ক্যাম্পের বাইরের খেলোয়াড়দের খোঁজ রাখতে পারে না। জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ-মন্ত্রণালয় থেকেও ক্রীড়াবিদদের সুচিকিৎসার তেমন ব্যবস্থা নেই।

আরও পড়ুন -
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত